জনতার বিক্ষোভে, মমতার প্রশাসনিক বৈঠকে যেতেই পারলেন না অভিষেক

5320
জনতার বিক্ষোভে মমতার প্রশাসনিক বৈঠকে যেতেই পারলেন না অভিষেক
জনতার বিক্ষোভে মমতার প্রশাসনিক বৈঠকে যেতেই পারলেন না অভিষেক

আমফান ঝড়ের পর; টানা তিনদিন কেটে গিয়েছে। নেই জল, বিদ্যুৎ। এই অবস্থায় ক্রমশ ক্ষোভ বাড়ছে সাধারণ মানুষের। কলকাতা সহ বেশ কয়েকটি জেলার রাস্তায় রাস্তায় চলছে মানুষের বিক্ষোভ, অবরোধ। এবার জনতার বিক্ষোভের মাঝে পরে; মুখ্যমন্ত্রী মমতার প্রশাসনিক বৈঠকে যেতেই পারলেন না; সাংসদ অভিষেক। জনতার অবরোধের মধ্যে মাঝ পথ থেকেই ফিরতে হল; ডায়মন্ডহারবারের সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে। যেতেই পারলেন না; কাকদ্বীপের প্রশাসনিক বৈঠকে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য তৈরি হয়েছে।

বাংলায় ৫ কলাম সেনা নামাল ভারতীয় সেনা

রাজ্য়ে আমফান পরবর্তী সময়ে; বিদ্যুৎ ও জলের দাবিতে; ব্যাপক বিক্ষোভ শুরু হয়েছে দক্ষিণ ২৪ পরগণা জেলায়। পরিস্থিতি এমনই হয়েছে যে; মানুষের বিক্ষোভের সামনে পরে; কাকদ্বীপে নিজের কেন্দ্রে প্রশাসনিক বৈঠকেই যেতে পারলেন না ডায়মন্ডহারবারের সাংসদ অভিষেক বন্দ্য়োপাধ্য়ায়। প্রবল বিক্ষোভের মুখে আটকে পরে গাাড়ি ঘুরিয়ে; বাড়ি ফিরতে হল তাকে।

আমফান ধাক্কা সামলাতে সেনার সাহায্য চাইলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা

রাজ্য়ে ঘূর্ণিঝড় আমফানের পরে; তিনদিন কেটে গিয়েছে। এখনও উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগণায় বহু জায়গায় বিদ্যুৎ আসেনি। জলের অভাবে রাস্তায় নেমেছেন বাসিন্দারা। পরিস্থিতি এমনই জায়গায় পৌঁছেছে যে; জন প্রতিনিধিদেরও রেয়াত করছেন না স্থানীয়রা। এদিন ছাড় পেলেন না অভিষেকও। কাকদ্বীপে আমফান নিয়েই; প্রশাসনিক বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানে জেলার জনপ্রতিনিধি, প্রশাসনিকদের আধিকারিকদের উপস্থিত থাকার কথা ছিল। সেই মতো সবাই হাজির ছিলেন; বাদ শুধু সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ই।

ভোটে নয়, বাংলায় গাছ কাটতে ডাকা হয় সেনা

জল, বিদ্যুৎ সহ একাধিক দাবিতে; শুক্রবারের পর; শনিবারও দফায় দফায় উত্তপ্ত হয়ে ওঠে ঠাকুরপুকুর, বেহালা সহ একাধিক এলাকা। চলে মানুষের বিক্ষোভ, আন্দোলন। আর সেই বিক্ষোভেই আটকে পড়েন অভিষেক। পুলিশের তরফে বারবার আবেদন জানিয়েও; কোনও লাভ হয়নি বলে অভিযোগ। প্রায় ঘন্টাখানেক এভাবে বিক্ষোভ চলতে থাকলে; মাঝপথ থেকেই সাংসদকে ফিরতে হয়। শনিবার, বিজেপি রাজ্য সভাপতি সাংসদ দিলীপ ঘোষকে আটকে দেয় পুলিশ; আর তৃণমূল যুবার সভাপতি ও সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে আটকে দিল জনতার বিক্ষোভ।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন