‘‌দড়ি ছিঁড়ে গরু পালিয়েছিল, আবার খুঁটিতে বাঁধা হল’‌, মুকুল ফিরে আসায় কটাক্ষ অনুব্রতর

818
‘‌দড়ি ছিঁড়ে গরু পালিয়েছিল, আবার খুঁটিতে বাঁধা হল’‌, মুকুল ফিরে আসায় কটাক্ষ অনুব্রতর
‘‌দড়ি ছিঁড়ে গরু পালিয়েছিল, আবার খুঁটিতে বাঁধা হল’‌, মুকুল ফিরে আসায় কটাক্ষ অনুব্রতর

‘‌দড়ি ছিঁড়ে গরু পালিয়েছিল, আবার খুঁটিতে বাঁধা হল’‌; মুকুল ফিরে আসায় কটাক্ষ অনুব্রতর। চার বছর পরে; ফের একফ্রেমে মমতা-মুকুল। শুধু তাই নয়; পাশাপাশি বসে মমতা-মুকুল-অভিষেক। “ঘরের ছেলে ঘরে ফিরল”; বললেন মমতা, স্বাগত জানালেন অভিষেক। “মমতা সর্বভারতীয় নেত্রী”; বললেন মুকুল রায়। “মুকুল আমাদের পরিবারেই ছিল; আবার ফিরে এসেছে”; জানিয়ে দেন মমতা। তবে সাংবাদিক সম্মেলনে, মুকুল রায়কে আর কোন কথা বলতে দেননি; মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপরেই বীরভূম থেকে অনুব্রত বলেন; ‘‌দড়ি ছিঁড়ে গরু পালিয়েছিল; আবার খুঁটিতে বাঁধা হল’‌।

মুকুল রায়ের তৃণমূলে ফেরা নিয়ে, এই ভাষাতেই কটাক্ষ করলেন; বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। মুকুল রায় তৃণমূলে যোগ দেবার পরেই; এদিন সাংবাদিকদের তিনি বলেন, “গোয়ালের গোরু দড়ি ছিঁড়ে বেরিয়ে গিয়েছিল; আবার খুঁটিতে এনে বাঁধা হল”। অনুব্রত মণ্ডল এদিন আরও বলেন; “আগে সংবাদমাধ্যমে শুনতাম; মুকুল রায় নাকি তৃণমূলের চাণক্য ৷ ২০২১ তো মুকুল রায় ছিলেন না। প্রমাণ হল তো; মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ই আসল চাণক্য ৷ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যা চাইবেন তাই হবে”।

আরও পড়ুনঃ মুকুল রায়ের সঙ্গে কোন কোন বিজেপি নেতা ফিরছেন তৃণমূলে

মুকুল রায় দলে ফিরেছেন; অনেকেই আবার ফেরার কথা ভাবছেন। কেন? এই প্রশ্নের উত্তরে অনুব্রত মণ্ডল এদিন বলেন; “গোয়ালে অনেক গোরু থাকে জানেন; যারা রাতে দড়ি ছিঁড়ে বেরিয়ে যায়। সকালে আবার গোঁজে এনে; বেঁধে দেওয়া হয়। আবার বাঁধা হয়েছে”। এরপরেই প্রশ্ন উঠে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। তাহলে কি মুকুল রায়কেই; দড়ি ছেঁড়া গরু বললেন অনুব্রত মণ্ডল?

আরও পড়ুনঃ ‘মীরজাফর’ মুকুল রায়ের তৃণমূলে যোগ, মাথা মুড়িয়ে শ্রাদ্ধ করবেন বিজেপি নেতা

এদিন মুকুল রায়কে উত্তরীয় পরিয়ে; তৃণমূলে স্বাগত জানালেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তৃণমূল থেকে বহিষ্কৃত হওয়ার ১৩৫৫ দিন পর; ফের জোড়াফুল শিবিরে মুকুল রায়ের প্রত্যাবর্তন। দলের প্রাক্তন সেকেন্ড ইন কম্যান্ডকে পাশে বসিয়ে; তাঁকে স্বাগত জানালেন তৃণমূল নেত্রী। যে দল তৈরির শরিক ছিলেন, এতদিন পর সেই দলে ফিরে; দৃশ্যতই মুখে হাসি মুকুল রায়ের। উত্তরীয় পরে স্বাগত জানালেন; অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় নিজেই। মমতা তাড়াতাড়ি সাংবাদিক সম্মেলন শেষ করে দিলেও; তাতে অস্বস্তিকর প্রশ্ন কমেনি সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেই বিতর্কে আরও ঘি ঢাললেন; বীরভূমের কেষ্ট।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন