পুজোর পরপরই দুই রাজ্যে নির্বাচন, কাশ্মীরের পর মোদী অমিতের অগ্নিপরীক্ষা

807
পুজোর পরপরই দুই রাজ্যে নির্বাচন, কাশ্মীরের পর মোদী অমিতের অগ্নিপরীক্ষা/The News বাংলা
পুজোর পরপরই দুই রাজ্যে নির্বাচন, কাশ্মীরের পর মোদী অমিতের অগ্নিপরীক্ষা/The News বাংলা

লোকসভা ভোট শেষ হতে না হতেই; শুরু হয়ে গেল বিধানসভা নির্বাচনের তোড়জোড়। শনিবার মহারাষ্ট্র এবং হরিয়ানার বিধানসভা নির্বাচনের; দিনক্ষণ ঘোষণা করল নির্বাচন কমিশন। এবার এই দুটি রাজ্যেই নির্বাচন হবে; একদফায় এবং একসঙ্গেই। পুজোর পরপরই দুই রাজ্যে নির্বাচন। নির্বাচনী বিজ্ঞপ্তি বের হবে; ২৭ সেপ্টেম্বর। মনোনয়ন দেওয়ার শেষ দিন ঠিক হচ্ছে; ৪ অক্টোবর। মনোনয়নের স্ক্রুটিনি হবে ৫ অক্টোবর। প্রার্থীদের নাম প্রত্যাহারের শেষ দিন ৭ অক্টোবর। দুই রাজ্যে একসঙ্গে নির্বাচন হবে ২১ অক্টোবর। ভোটের ফলাফল জানা যাবে ২৪ অক্টোবর।

বিশেষজ্ঞদের মতে; দুই রাজ্যেই কিছুটা হলেও এগিয়ে বিজেপি। লোকসভা ভোটের ফলাফলও তাঁদের দিকেই। মহারাষ্ট্রে ২৮৮ আসনের মধ্যে ২০১৪ বিধানসভায় বিজেপি জিতেছিল ১২২টি আসন। শিব সেনা জিতেছিল ৬৩টি। অর্থাৎ বিজেপি-শিব সেনা জোট জিতেছিল ১৮৫টি আসন।

আরও পড়ুনঃ জলপথে পাক সেনাকে হারাতে, নৌসেনার হাতে এলো নতুন অস্ত্র

অন্যদিকে; বিরোধী কংগ্রেস ৪২ এবং এনসিপি ৪১টি আসন পেয়েছিল। অন্যান্যদের দখলে গিয়েছিল ২০টি আসন। সম্প্রতি লোকসভা নির্বাচনেও; মহারাষ্ট্রে দুর্দান্ত ফল করেছে বিজেপি–শিবসেনা জোট। যদিও বিজেপিকে এবার লড়তে হবে; কংগ্রেস–এনসিপি জোটের বিরুদ্ধে। দু’দলই এবার লড়বে ১২৫টি করে আসনে।

অন্যদিকে, ৯০ আসনবিশিষ্ট হরিয়ানা বিধানসভায়; আগেরবার ৪৭টি আসন জিতে সরকার গড়েছিল বিজেপি। আইএনএলডির দখলে গিয়েছিল ১৯টি আসন। কংগ্রেস জিতেছিল মাত্র ১৫টি আসন। সম্প্রতি শেষ হওয়া লোকসভাতেও; ভাল ফল করেনি কংগ্রেস। রাজ্যেও এগিয়ে বিজেপিই।

২০০৯ বিধানসভা নির্বাচনে; মাত্র ৪৬টি আসন পাওয়া বিজেপি গত বিধানসভায়; চমকপ্রদভাবে প্রথম স্থানে উঠে আসে। এবারের বিধানসভা নির্বাচনেও; বিজেপি অনেকটাই এগিয়ে। সম্প্রতি লোকসভা নির্বাচনেও; মহারাষ্ট্রে দুর্দান্ত ফল করেছে বিজেপি-শিব সেনা জোট। স্বাভাবিকভাবেই, বিধানসভার আগে অ্যাডভান্টেজে গেরুয়া শিবির।

বিজেপিকে এবার লড়তে হবে কংগ্রেস-এনসিপি জোটের বিরুদ্ধে। কংগ্রেস এবং এনসিপি এবারে ১২৫টি করে আসনে লড়বে। অন্যদিকে, বিজেপি-শিব সেনা জোটের আসনরফা এখনও চূড়ান্ত হয়নি। লড়াইয়ে আছে রাজ ঠাকরের মহারাষ্ট্র নব নির্মাণ সেনা; প্রকাশ আম্বেদকরের বঞ্চিত বহুজন বিকাশ আগাডিও।

অন্যদিকে, ২০০৯ সালে অবশ্য হরিয়ানায় সরকার ছিল কংগ্রেসেরই। গত বিধানসভার ধাক্কা সামলাতে পারেনি কংগ্রেস। সম্প্রতি শেষ হওয়া লোকসভাতেও; শূন্য হাতে ফিরতে হয়েছে কংগ্রেসকে। এবারেও দলের অন্দরের অন্তর্দ্বন্দ্ব ভোগাচ্ছে হাত শিবিরকে। তাই, হরিয়ানাতেও খানিকটা এগিয়ে বিজেপি।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন