“শুভেন্দুকে অনুরোধ, বিজেপির দায়িত্ব নিয়ে আবর্জনা হঠান”, বি’স্ফোরক বৈশালী

1128
"শুভেন্দুকে অনুরোধ, বিজেপির দায়িত্ব নিয়ে আবর্জনা হঠান", বি'স্ফোরক বৈশালী

“শুভেন্দুকে অনুরোধ, বিজেপির দায়িত্ব নিয়ে আবর্জনা হঠান”; মুকুল রায় তৃণমূলে যোগ দেওয়ার পরেই বি’স্ফোরক বৈশালী ডালমিয়া। কিন্তু হঠাৎ শুভেন্দু অধিকারীকে অনুরোধ কেন? এটাই এখন বড় প্রশ্ন। মুকুল রায়ের সঙ্গে অনেক বিজেপি নেতাই; মুখ খুলছেন দলের বিরুদ্ধে। এই কারণেই সেই সব নেতাদের দল থেকে বের করে দেওয়া উচিত; বলেই মনে করেন বিজেপি নেত্রী বৈশালী ডালমিয়া। যারা তৃণমূলে ফের যাওয়ার জন্য, বিজেপির বিরুদ্ধে মুখ খুলছেন; তাঁদের এখনই দল থেকে আবর্জনার মত ঝেড়ে ফেলা উচিত; বলেই জানিয়েছেন বৈশালী। এরপরেই শুরু হয়েছে; জোর বিতর্ক।

মুকুল রায়ের সঙ্গে তৃণমূলে ফিরছেন; একঝাক প্রাক্তন তৃণমূল নেতা। এদের মধ্যে আছেন, সব্যসাচী দত্ত; শীলভদ্র দত্ত; রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়; জীতেন্দ্র তিওয়ারি; প্রবীর ঘোষাল; রথীন চক্রবর্তী; অনুপম হাজরা; রতন ঘোষ; পার্থসারথি চট্টোপাধ্যায় সহ অনেকেই। ফিরবেন সোনালী গুহ, সরলা মুরমু-রাও। রাজ্য রাজনীতিতে এক ঝটকায়; বড়সড় পরিবর্তন হতে চলেছে। তৃণমূলে ফিরবেন শোভন চট্টোপাধ্যায় সহ অনেকেই। মুকুল রায়ের পরে, ১৫ থেকে ২০ জন তৃণমূলের বড় নেতা; বিজেপি থেকে তৃণমূলে ফিরবেন; এমনটাই জানা যাচ্ছে।

আরও পড়ুনঃ মুকুল রায়ের সঙ্গে কোন কোন বিজেপি নেতা ফিরছেন তৃণমূলে

এর মধ্যেই সব্যসাচী দত্ত, প্রবীর ঘোষাল, রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় ও অনুপম হাজরা সহ অনেকেই; মুখ খুলেছেন দলের বিরুদ্ধে। এদেররই কি দলের আবর্জনা বললেন; বৈশালী ডালমিয়া? বৈশালী জানান, যারা তৃণমূলে ঢোকার জন্য; বিজেপির সমালোচনা করছেন, তাঁরাই দলের আবর্জনা; এদের বের করে দেওয়া হোক।

আরও পড়ুনঃ দিলীপ ঘোষের পরিবর্তে রাজ্য বিজেপির সভাপতি কে, শুভেন্দু না আরএসএস ঘনিষ্ঠ

বৈশালীর মতামত প্রকাশ্যে আসতেই শুরু হয়েছে; জোর বিতর্ক। তাহলে কি দলের সমালোচনা করা যাবেনা? প্রশ্ন তুলেছেন ক্ষুব্ধ বিজেপি নেতারা। অনেকেই বলেছেন, বৈশালী কে যে সেও; বিজেপি দল নিয়ে কথা বলবে। আর দলের রাজ্য সভাপতি তো দিলীপ ঘোষ; তাহলে শুভেন্দুকে অনুরোধ কেন? তবে বৈশালী তারপরেই ঢোঁক গিলে বলেছেন; “আমি দিলীপ ঘোষ-কেও; সেই একই অনুরোধ করব”। তবে সব নিয়ে মুকুল রায়ের দিনেও; খবরে বৈশালী ডালমিয়া।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন