বিজেপির মহিলা কর্মীকে গণ ধ’র্ষণের অভিযোগ খেজুরিতে, কাঠগড়ায় তৃণমূল

878
বিজেপির মহিলা কর্মীকে গণ ধ'র্ষণের অভিযোগ খেজুরিতে, কাঠগড়ায় তৃণমূল
বিজেপির মহিলা কর্মীকে গণ ধ'র্ষণের অভিযোগ খেজুরিতে, কাঠগড়ায় তৃণমূল

বিজেপির মহিলা কর্মীকে; গণ ধ’র্ষণের অভিযোগ খেজুরিতে। ফের কাঠগড়ায় তৃণমূল। এবার পূর্ব মেদিনীপুরের খেজুরিতে; বিজেপির মহিলা কর্মীকে গ’ণধ’র্ষণের অভিযোগ উঠল। গ’ণধ’র্ষণের পর ওই মহিলাকে; বি’ষ খাইয়ে খুনের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগ তৃণমূল আশ্রিত; দু’ষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। অভিযোগ অস্বীকার তৃণমূল কংগ্রেসের। এই ঘটনার প্রতিবাদে; বিজেপির মহিলা কর্মীরা পথ অবরোধ করেন। অবরোধ তুলেতে গেলে; পুলিশের সঙ্গে বচসা বাঁধে বিজেপির মহিলা কর্মীদের। গুরুতর আ;শঙ্কাজনক অবস্থায়; ওই মহিলা কর্মী ভর্তি আছেন হাসপাতালে।

গত রবিবার নির্বাচনের ফল ঘোষণার পর থেকেই; উত্তপ্ত রাজ্য রাজনীতি। কোথাও মারধর, বাড়ি ভাঙচুর; কোথাও আবার খু’নের অভিযোগ। এবার বিজেপির এক মহিলা কর্মীকে গণ ধ’র্ষণের অভিযোগ উঠল। ঘটনা খেজুরির বারাতলায়। বিজেপির অভিযোগ, শুধু গণ ধ’র্ষণই নয়; বি’ষও খাওয়ানো হয়েছে তাঁকে। প্রতিবাদে বুধবার সকালে খেজুরি-হেড়িয়া রাজ্য সড়ক; অবরোধ করেন বিজেপির মহিলা মোর্চার কর্মীরা। খবর পেয়ে অবরোধ তুলতে; ঘটনাস্থলে যায় বিশাল পুলিশ বাহিনী। সেখানেই পুলিশের সঙ্গে তুমুল বচসা; শুরু হয়। পুলিশকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখান; বিজেপির মহিলা কর্মীরা।

আরও পড়ুনঃ “আমি ভোটে হারলে মুখ্যমন্ত্রী হতাম না”, মমতাকে কটাক্ষ বিপ্লবের

বুধবার খেজুরি-হেড়িয়া রাজ্য সড়ক অবরোধ বিজেপির মহিলা মোর্চার কর্মীদের

ওই মহিলাকে বর্তমান কামারদা হাসপাতাল থেকে; কাঁথিতে স্থানান্তরিত করা হয়েছে। ঘটনার তদন্তের আশ্বাস দিয়েছে; পুলিশ প্রশাসন। ঘটনার সঙ্গে রাজনীতির যোগ আছে কিনা; তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। ভোট পরবর্তী হিং’সার অভিযোগে; জেরবার গোটা বাংলা। কোথাও বাড়ি ভাঙচুর, কোথাও লুঠপাট; কোথাও জ্বালিয়ে দেওয়া হচ্ছে প্রতিপক্ষের দোকান সম্পত্তি। ইতিমধ্যে একাধিক খু;নের অভিযোগও উঠেছে।

আরও পড়ুন; দলীয় কর্মীরা আক্রান্ত, মমতার শপথগ্রহণ অনুষ্ঠান বয়কট দিলীপের

বিভিন্ন জেলায় গত দুদিনে ভোট পরবর্তী হিং’সার খবরে; প্রশ্নের মুখে রাজ্যের আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি। ইতিমধ্যেই উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন; প্রধানমন্ত্রী ও রাজ্যপাল। তৃতীয়বার মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নেওয়ার পরই; মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও এর দায়ে নিলেন না। মমতা স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন; “আমি এখুনি শপথ নিলাম। এর আগে নির্বাচন কমিশনের আন্ডারে; এই সরকারের পুলিশ কাজ করেছে”। পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রী এটাও স্পষ্ট করেন যে; “এখন থেকে আরও কোথাও কোনওরকমের অ’শান্তি; বরদাস্ত করা হবে না। অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কড়া; পদক্ষেপ করা হবে”।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন