কমিশনের নজরে বিধানসভা ভোট, নিজের জেলায় ডিউটি নয় রাজ্য পুলিশ কর্মী আধিকারিকদের

3692
কমিশনের নজরে বিধানসভা ভোট, 'দলের হয়ে দাদাগিরি' শেষ রাজ্য পুলিশের
কমিশনের নজরে বিধানসভা ভোট, 'দলের হয়ে দাদাগিরি' শেষ রাজ্য পুলিশের

এতদিন ছিল শুধুমাত্র ভোট কর্মীদের জন্য। এবার তা লাগু হল পুলিশের জন্যও। ভারতের নির্বাচন কমিশনের নজরে; বাংলার বিধানসভা ভোট। নিজের জেলায় আর ডিউটি নয়; রাজ্য পুলিশ কর্মী আধিকারিকদের। বড়সড় সিদ্ধান্ত নিচ্ছে; নির্বাচন কমিশন। রাজনৈতিক ‘দলের হয়ে দাদাগিরি’; শেষ হতে চলেছে রাজ্য পুলিশের। আর নিজের জেলায় ভোটের ডিউটি নয়। রাজ্য ও কলকাতা; দুই বিভাগে থাকা পুলিশ কর্মী ও আধিকারিকরা কেউই; আর নিজের জেলায় ভোটের ডিউটি করতে পারবেন না। স্বচ্ছ নির্বাচন করতে, বিরোধীদের অভিযোগ মেনে; বড়সড় সিদ্ধান্ত নিচ্ছে নির্বাচন কমিশন। নিজের জেলা ও নিজের থানা এলাকায়; ভোটের ডিউটি করতে পারবেন না পুলিশ কর্মী আধিকারিকরা। কমিশনের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছে; শাসক তৃণমূল ছাড়া রাজ্যের সব রাজনৈতিক দল।

কমিশন নির্বাচনী বিধি এব‌ং ভোট পরিচালনা নিয়ে; একের পর এক নির্দেশ দিয়েছে। আর বুঝিয়ে দিয়েছে, রাজ্যের পুলিশ–প্রশাসনের অতীত ও সাম্প্রতিক নানা খুঁটিনাটি তথ্য; তাদের হাতের মুঠোয় রয়েছে। গত ২১ জানুয়ারি, কলকাতার এক পাঁচতারা হোটেলে জেলাশাসক ও পুলিশকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন; মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরার নেতৃত্বাধীন কমিশনের ফুলবেঞ্চ। সেই বৈঠকে অরোরা জানান, “সমান্তরাল প্রশাসনের মাধ্যমে; সব খবরই রাখছে কমিশন। তাঁর দেওয়া সব খুঁটিনাটি তথ্যই, একদম ঠিক বলে জানাচ্ছেন; বৈঠকে উপস্থিত বিভিন্ন জেলার জেলাশাসক ও পুলিশ সুপারেরা।

আরও পড়ুনঃ গরু কয়লা পাচার কাণ্ডে, তৃণমূল যুবার সাধারণ সম্পাদক বিনয় মিশ্রের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি

সূত্রের খবর, প্রায় সাড়ে চার ঘণ্টার বৈঠকে; জেলাশাসক ও পুলিশকর্তাদের বিভিন্ন বিষয়ে; সতর্ক করে দেন কমিশনের আধিকারিকরা। পক্ষপাতমূলক আচরণ ধরা পড়লে; চাকরিতে কালো দাগ পড়তে পারে বলেও হুঁশিয়ারি দেন তাঁরা। কমিশনের সমান্তরাল প্রশাসনের পদক্ষেপ দেখে; কপালে ভাঁজ পড়েছে পুলিশ-প্রশাসনের কর্তাদের। কারণ এত বিস্তারিত তথ্য, দিল্লিতে বসে কীভাবে জানা সম্ভব; তা ভাবাচ্ছে তাঁদের।

এবার পুলিশ পোস্টিং এও কড়া হল; নির্বাচন কমিশন। কোনরকমেই নিজের জেলায় ভোটের ডিউটি নয়; নির্দেশ জারি করছে কমিশন। এছাড়াও বাংলায় আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনের কাজে; কোনওভাবেই গ্রিন পুলিশ, সিভিক ভলান্টিয়ারদের ব্যবহার করা যাবে না; বলে আগেই সাফ জানিয়ে দিয়েছে কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন। আসন্ন বিধানসভা নির্বাচন; অবাধ ও শান্তিপূর্ণ করতে তৎপর কমিশন।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন