বিজেপি নেতাকে খু’নের অভিযোগে বাগনান বনধ, অ’ভিযুক্ত তৃণমূল নেতা প’লাতক

1077
বিজেপি নেতাকে খু'নের অভিযোগে বাগনান বনধ, অ'ভিযুক্ত তৃণমূল নেতা প'লাতক
বিজেপি নেতাকে খু'নের অভিযোগে বাগনান বনধ, অ'ভিযুক্ত তৃণমূল নেতা প'লাতক

বিজেপি নেতাকে খু’নের অভিযোগে চলছে বাগনান বনধ; অ’ভিযুক্ত তৃণমূল নেতা এখনও প’লাতক। দলীয় নেতা কিঙ্কর মাজির খু’নের অভিযোগেই; ১২ ঘণ্টার বাগনান বনধের ডাক দিয়েছে বিজেপি। অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে; বাগনানে নামানো হয়েছে প্রচুর পুলিশ; মোতায়েন র‍্যাফ, জলকামান। অধিকাংশ দোকানই এদিন খোলেনি। বনধের বিরোধিতায়; সকালে বাগনান স্টেশন চত্বরে; বিক্ষোভ দেখান তৃণমূল কর্মীরা। গু’লিবিদ্ধ বিজেপি নেতা কিঙ্কর মাজির মৃ’ত্যুকে ঘিরে; গতকাল অ’গ্নিগর্ভ হয়ে ওঠে বাগনান। দফায় দফায় হয় অবরোধ। মূল অ’ভিযুক্তর বাড়ি ভাঙচুরের পর; আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। ঘটনার পর থেকে তার বাড়ির সামনে; পুলিশি প্রহরা বসেছে।

অষ্টমীর রাতে বাড়ির কাছেই গু’লিবিদ্ধ হয়েছিলেন; হাওড়ার বাগনানের বিজেপি নেতা কিঙ্কর মাজি। ভর্তি ছিলেন কলকাতার এনআরএস হাসপাতালে। বিজেপির অভিযোগ, তৃণমূলের নেতারাই; তাঁকে খু’ন করেছে। অন্যদিকে তৃণমূলের অভিযোগ, জমি বিবাদের জেরেই; তাঁকে খু’ন করেছে এক প্রতিবেশী। বুধবার দুপুরে কিঙ্কর মাজি (৫২) নামে; ওই দলীয় নেতার মৃ’ত্যুতে তৃণমূলের বিরুদ্ধে; খু’নের অভিযোগ তুলে পথে নামে বিজেপি। যার জেরে তেতে ওঠে এলাকা। তৃণমূল এই অভিযোগ মানেনি। পুলিশের আবার দাবি, মৃত্যুর কারণ করোনা।

আরও পড়ুনঃ মমতার দেওয়া পুজোর অনুদান ৫০,০০০ টাকার চেক বাউন্স, টাকা পাচ্ছেন না পুজো উদ্যোক্তারা

বাগনানের চন্দনাপাড়ার বাসিন্দা কিঙ্করের মৃত্যুর কথা জানাজানি হতেই; বুধবার গ্রামীণ হাওড়ার বিভিন্ন জায়গায় দফায় দফায় অবরোধ করে বিজেপি। উলুবেড়িয়ার মনসাতলায় ৬ নম্বর জাতীয় সড়কে; টায়ার জ্বালিয়ে অবরোধ করা হয়। চন্দনাপড়ায় কিঙ্করের পড়শি, অভিযুক্ত তৃণমূল নেতা পরিতোষ মাজির বাড়িতেও; ভাঙচুর চালানো হয়। পুলিশ অবশ্য এখনই ঘটনাটিকে; খুন বলে মানছে না। খুনের মামলাও রুজু হয়নি। হাওড়া (জেলা) গ্রামীণ পুলিশ সুপার সৌম্য রায় বলেন; “হাসপাতালে অস্ত্রোপচার হয়েছিল কিঙ্করবাবুর। করোনা পরীক্ষায় রিপোর্ট পজ়িটিভ ধরা পড়ে। তাতেই মৃত্যু হয়েছে বলে; হাসপাতাল জানিয়েছে। দেহ ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়েছে”।

কিঙ্করের স্ত্রী শোভা পুলিশের কাছে; পরিতোষ-সহ তিন জনের নামে খুনের অভিযোগ দায়ের করেছিলেন। অভিযুক্তদের মধ্যে একজনকে; পুলিশ শনিবার গ্রেফতার করে। তবে, মূল অভিযুক্ত পরিতোষ এবং তার শাগরেদ; এখনও পলাতক। পরিতোষকে তৃণমূল কর্মী হিসেবেই; দাবি করেছে বিজেপি। অন্যদিকে, “অভিযুক্তেরা কেউ তৃণমূলের নয়”; বলেই দাবি করেছেন বাগনানের তৃণমূল বিধায়ক অরুণাভ সেন।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন