লকেটের মশাল মিছিল আটকে দিল কলকাতা পুলিশ

721
লকেটের মশাল মিছিল আটকে দিল কলকাতা পুলিশ/The News বাংলা
লকেটের মশাল মিছিল আটকে দিল কলকাতা পুলিশ/The News বাংলা

কুমারগঞ্জ ধর্ষণকাণ্ডে; লকেট চট্টোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে মশাল মিছিল। কুমারগঞ্জের ঘটনার প্রতিবাদে মশাল মিছিল; মিছিল ঘিরে উত্তেজনা। পুলিশের সঙ্গে বচসায় জড়ালেন; সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়। পুলিশ মিছিল আটকে দেওয়ায়; পুলিশের সঙ্গে বচসা লকেটের। দক্ষিণ দিনাজপুরের কুমারগঞ্জে ১৭ বছরের কিশোরীকে ধর্ষণ ও পুড়িয়ে হত্যার ঘটনার প্রতিবাদে; সোমবার কলকাতায় মিছিল বের করে বিজেপি। সেই মিছিলের নেতৃত্ব দিচ্ছিলেন বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়।

বিজেপির মহিলা মোর্চার সেই মিছিল আটকে দেয় কলকাতা পুলিশ। পুলিশের দাবি; মিছিলে অংশগ্রহণকারী বিজেপি সমর্থকদের হাতে ছিল জ্বলন্ত মশাল। যার জন্য কোন অনুমতি নেওয়া ছিল না বিজেপির তরফ থেকে। জ্বলন্ত মশাল হাতে বিজেপির মিছিল আটকে দেয় পুলিশ।

আরও পড়ুন ইতিহাস শাহজাহান ঔরঙ্গজেব পড়িয়েছে, তানাজি পড়ায়নি

বিজেপি মহিলা মোর্চার মিছিল যাবার কথা ছিল বিজেপি পার্টি অফিস থেকে ধর্মতলা পর্যন্ত। কিন্তু পুলিশ সেই মিছিল সিআর এভ্যিনিউতে আটকে দেয়। পুলিশ মিছিল আটকালে; জোর করে এগিয়ে যেতে চেষ্টা করে মহিলা মোর্চা। যার ফলে পরিস্থিতি যথেষ্ট উত্তপ্ত হয়ে ওঠে।

পুলিশের পক্ষ থেকে বারবার বলা হয়; মশালের আগুন নিভিয়ে দেবার কথা। কিন্তু তাতে রাজি ছিলেন না বিজেপির মহিলা মোর্চার সভানেত্রী তথা সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়। পুলিশের সঙ্গে দীর্ঘক্ষণ বচসা হয় বিজেপি মহিলা মোর্চা সভানেত্রীর।

শেষ পর্যন্ত পুলিশের সঙ্গে না পেরে; মিছিল শেষ করে বিজেপির মহিলা মোর্চা। পুলিশের দাবি আগুন নিয়ে মিছিল অতন্ত্য বিপদজনক; যে কোন মুহূর্তে যে কোন রকম বড় দুর্ঘটনা ঘটে যেতে পারে শহরে। তাছাড়া কলকাতা পুলিশের কাছে কোন রকম আগাম খবর ছিল না এই জ্বলন্ত মশাল নিয়ে শহরের বুকে মিছিলের।

কুমারগঞ্জের কিশোরীকে তিন যুবক মিলে ধর্ষণ ও পুড়িয়ে মারার ঘটনাকে নিয়ে সরব হয় বিজেপির মহিলা মোর্চার সভানেত্রী তথা সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়। তিনি কুমারগঞ্জেও যান নির্যাতিতার পরিবারের সঙ্গে কথা বলতে। কিন্তু সেখানেও বাধা পেয়েছেন বিজেপি সাংসদ।

নির্যাতিতার বাবা মায়ের সঙ্গে দেখা না করেই; ফিরতে হয়েছে বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়কে। বিজেপি নেত্রীর অভিযোগ; সত্য গোপন করতেই পুলিশ লুকিয়ে রেখেছে তাঁদের। লকেট চট্টোপাধ্যায়ের আরও অভিযোগ; তৃণমূল সরকার টাকা দিয়ে মুখ বন্ধ করতে চাইছে নির্যাতিতার পরিবারের।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন