দেশের মধ্যে সেরা মমতা, করোনা আবহেই শ্রেষ্ঠত্বের সম্মান বাংলার ঝুলিতে

2926
দেশের মধ্যে সেরা মমতা, করোনা আবহেই শ্রেষ্ঠত্বের সম্মান বাংলার ঝুলিতে/The News বাংলা
দেশের মধ্যে সেরা মমতা, করোনা আবহেই শ্রেষ্ঠত্বের সম্মান বাংলার ঝুলিতে/The News বাংলা

দেশের মধ্যে সেরা মমতা; করোনা আবহেই শ্রেষ্ঠত্বের সম্মান বাংলার ঝুলিতে। তার বিরুদ্ধে ওঠা; বিরোধীদের অভিযোগের শেষ নেই। অভিযোগ, একটু এদিক ওদিক হলেই; তাকে বিঁধতে তৈরি থাকে প্রতিদ্বন্দ্বীরা। তবে করোনাকে ঠেকাতে; তার প্রচেষ্টার বিরাম নেই; দাবি রাজ্য সরকারের। কু-কথায় কান না দিয়ে; নিজের রাজ্যের সেবায় নিবেদিত প্রাণ; বাংলার মুখ্যমন্ত্রী, এমনটাই দাবি তৃণমূলের।। আর সেই করোনা পরিস্থিতিতেই; এবার সেরার সম্মান ছিনিয়ে নিল বাংলা। দিল্লির একটি বেসরকারি সংস্থা স্কচ ফাউন্ডেশন; নাগরিক অভিযোগ নিরসনে শ্রেষ্ঠ সম্মানে ভূষিত করেছে; রাজ্যের ‘পাবলিক গ্রিভেন্স সিস্টেম’ দফতরকে।

আরও পড়ুনঃ ‘করোনা যুদ্ধে মমতা’, মহামারির সঙ্গে লড়াইয়ে মুখ্যমন্ত্রীর ভূমিকা স্থান পেল বইয়ের পাতায়

করোনার আবহেও নিজের দফতরে; দেশের মধ্যে সেরা হলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দিল্লির একটি বেসরকারি সংস্থা, স্কচ ফাউন্ডেশনের বিচারে; সারা দেশের মধ্যে মুখ্যমন্ত্রী মমতার অধীনে থাকা রাজ্যের ‘পাবলিক গ্রিভেন্স সিস্টেম’ দফতর; শ্রেষ্ঠত্বের পুরস্কার পেল। স্কচ ফাউন্ডেশন রাজ্যগুলিকে; ভালো প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য স্বীকৃতি দেয়। এবার সেই স্বীকৃতি পেল; মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এর সরকারের দফতর।

আরও পড়ুনঃ ভাঙন তৃণমূলে, শিক্ষামন্ত্রীর খাসতালুক থেকে ২০০ তৃণমূল কর্মীর পদ্মে যোগদান

২০১৯-এ মুখ্যমন্ত্রী মমতার নির্দেশে; সাধারণ মানুষের অভাব অভিযোগ শুনতে; তৈরি করা হয়; পাবলিক গ্রিভেন্স সিস্টেম। সেখানে সাধারণ মানুষের অভাব-অভিযোগ শোনেন; মুখ্যমন্ত্রীর দফতরের অভিজ্ঞ অফিসাররা। তারপর তা সমাধানও করা হয়। ইতিমধ্যেই সাধারণ মানুষের অভিযোগের ৯৫ শতাংশ; সমাধান করে রেকর্ড গড়েছে; মমতার এই দফতর। এমনটাই দাবি রাজ্য সরকারের। সেই দফতরের সফলতাই; জাতীর সেরা সম্মান তুলে দিয়েছেন মমতার হাতে।

আরও পড়ুনঃ পরাধীন ভারতে মাঠের বাইরে, ব্রিটিশদের বর্ণবৈষম্যের বিরুদ্ধে লড়েছিল ইস্টবেঙ্গল

মুখ্যমন্ত্রী মমতার তৈরি; এই পাবলিক গ্রিভেন্স সিস্টেম; বাংলাতে স্বীকৃতি এনে দিল। প্রতি বছরই দিল্লির ওই সংস্থা; দেশের সেরা ১৪টি দফতরকে বেছে নিয়ে প্ল্যাটিনাম; তিনটি সোনা ও ১০টি রূপোর পদক দিয়ে সম্মানিত করে; সেইসব রাজ্য বা কেন্দ্র সরকারের দফতরকে। এবার তাদের বিচারে সেরার সম্মান পেয়েছে; মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দফতর। জিতে নিয়েছে প্ল্যাটিনাম পদক। “দেশের মধ্যে রাজ্যকে; তিনি যে সেরার শিখরে নিয়ে যেতে পেরেছেন; তাতেই গর্বিত মুখ্যমন্ত্রী মমতা”; জানান হয়েছে রাজ্য সরকারের তরফ থেকে।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন