কারচুপি রুখতে কড়া পদক্ষেপ, বাড়িতে রান্নার গ্যাস সিলিন্ডার সরবরাহ নিয়মে বড়সড় বদল

1812
কারচুপি রুখতে কড়া পদক্ষেপ, রান্নার গ্যাস সিলিন্ডার সরবরাহ নিয়মে বড় বদল
কারচুপি রুখতে কড়া পদক্ষেপ, রান্নার গ্যাস সিলিন্ডার সরবরাহ নিয়মে বড় বদল

কারচুপি রুখতে কড়া পদক্ষেপ। বাড়িতে রান্নার গ্যাস সিলিন্ডার সরবরাহ নিয়মে; বড়সড় বদল আসছে; ১ লা নভেম্বর থেকেই। আপাতত দেশের ১০০টি স্মার্ট সিটিতে; এই নিয়ম কার্যকর করা হবে। রাজস্থানে জয়পুরে এই প্রকল্প; পরীক্ষামূলকভাবে প্রয়োগ করা হচ্ছে। প্রসঙ্গত, অনেকসময় দেখা যায়; একজন গ্যাস সিলিন্ডার বুক করলে, তা অনেকসময় অন্য গ্রাহকের কাছে; পৌঁছে দেওয়া হয়। কিংবা অতিরিক্ত সিলিন্ডার; বিক্রিও করে দেয় অনেকে। এবার এই সমস্ত কারচুপিতে রাশ টানতে; কঠোর পদক্ষেপ করছে এলপিজি সংস্থাগুলি।

রান্নার গ্যাস সিলিন্ডার (LPG Cylinder) সরবরাহে; নিয়মে বড় বদল আসছে। গ্যাস (এলপিজি) সিলিন্ডারের হোম ডেলিভারি পদ্ধতি; আগামী মাস থেকে পরিবর্তিত হবে। ১ নভেম্বর থেকে বাড়ির দোরগোড়ায়, আপনার গ্যাস সিলিন্ডারটি সরবরাহ করতে; আপনার এককালীন পাসওয়ার্ড (ওটিপি) লাগবে। তেল সংস্থাগুলি চুরি রোধ করতে এবং সঠিক গ্রাহককে সনাক্ত করতে; ডেলিভারি অথেনটিকেশন কোড (ড্যাক) নতুন সিস্টেমটি প্রয়োগ করছে।

আরও পড়ুনঃ পুজো অনুদান নিয়ে কড়া হাইকোর্ট, দিতে হবে পাই পয়সার হিসাব, কিসে খরচা করতে হবে তাও বলে দিল আদালত

গ্রাহকরা ফোন করে, এলপিজি সিলিন্ডার বুক করার সঙ্গে সঙ্গে; তাঁদের রেজিস্ট্রার্ড মোবাইল নম্বরে একটি ওটিপি আসবে। সিলিন্ডার ডেলিভারি করার সময়; সেই কোড ওই সরবরাহকারীকে দিতে হবে। সঠিক ওটিপি দিলে তবেই; মিলবে এলপিজি সিলিন্ডার। ডেলিভারি অথেন্টিকেশন কোড (DAC); প্রথমে ১০০ টি স্মার্ট সিটিতে প্রয়োগ করা হবে।

ইতিমধ্যে রাজস্থানের জয়পুরে; এটি পাইলট প্রকল্প হিসেবে চালু হয়েছে। এই পদ্ধতির অধীনে, কেবল সিলিন্ডারের জন্য; বুকিং দিয়ে বিতরণ সম্পন্ন হবে না। গ্রাহকের নিবন্ধিত মোবাইল নম্বরটিতে; একটি কোড পাঠানো হবে। ডেলিভারি ব্যক্তির কাছে; কোড দেখালেই সিলিন্ডার দেওয়া হবে।

তবে এই নিয়মে কারচুপি যেমন রোখা যাবে; তেমনই প্রক্রিয়া আরও জটিল হবে; বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল। কারণ দেশের প্রান্তিক এলাকায়; বহু গ্রাহকের মোবাইল নম্বর রেজিস্টার করা নেই। অনেকে আবার মেসেজ বা ওটিপি; দেখতে জানেন না। ফলে তাঁদের ক্ষেত্রে বিষয়টা; অনেক বেশি জটিল হয়ে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। আবার এই ওটিপির নামে জালিয়াতিও আশঙ্কাও; একেবারে উড়িয়ে দিচ্ছেন না তাঁরা।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন