ভারতে এল করোনা ভ্যাকসিন, মঙ্গলবার থেকে ড্রাই রান শুরু হল বাংলাতেও

1732
ভারতে এল করোনা ভ্যাকসিন, মঙ্গলবার থেকে 'ভ্যাকসিন টেস্ট' শুরু বাংলাতেও/The News বাংলা
ভারতে এল করোনা ভ্যাকসিন, মঙ্গলবার থেকে 'ভ্যাকসিন টেস্ট' শুরু বাংলাতেও/The News বাংলা

ভারতে এল করোনা ভ্যাকসিন; মঙ্গলবার থেকেই ড্রাই রান শুরু হল গোটা ভারতে। বাংলাতেও এল করোনা ভ্যাকসিন; মঙ্গলবার থেকেই ড্রাই রান শুরু হল। মঙ্গলবার করোনা ভ্যাকসিনের ড্রাই রান চলছে; দত্তাবাদ, মধ্যমগ্রাম ও আমডাঙ্গায়। তিন জায়গায় প্রাথমিক ভাবে বাছা হয়েছে; ২৫ জন করে মানুষকে। বছরের প্রথম দিনেই ভারতে জরুরি ক্ষেত্রে ব্যবহারের জন্য; ছাড়পত্র পেল অক্সফোর্ডের করোনা ভ্যাকসিন কোভিশিল্ড। আজ দেশের বিভিন্ন জায়গার সঙ্গে; এ রাজ্যেও শুরু হল করোনা ভ্যাকসিনের ড্রাইরান বা টিকাকরণ প্রক্রিয়ার মহড়া। ভ্যাকসিনের ড্রাই রান হল; প্রতিষেধক এলে এবং তা দেওয়ার সময় কী কী করতে হবে; কী কী চ্যালেঞ্জের মুখে পড়তে হবে তা বুঝে নেওয়া।

সেটা বোঝার জন্য বছরের দ্বিতীয় দিন থেকেই; দেশজুড়ে শুরু হল ড্রাই রান। এ রাজ্যেও ২ জানুয়ারি অর্থাৎ আজ থেকেই হয়ে গেল; করোনা ভ্যাকসিনের ড্রাই রান। বিধাননগর পুরসভার অধীন দত্তাবাদ প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্র; মধ্যমগ্রাম পুরসভার অন্তর্গত আরবান প্রাইমারি হেলথ সেন্টার ফোর এবং আমডাঙা গ্রামীণ হাসপাতালে; চলছে এই টিকাকরণ প্রক্রিয়ার মহড়া। প্রত্যেক জায়গায় ২৫ জন স্বাস্থ্যকর্মী; অংশ নিচ্ছেন এই ড্রাই রানে। সকাল ১০ টা থেকেই; শুরু হয়েছে এই ড্রাই রানের।

আরও পড়ুনঃ “আমার পরিবারকে যারা বেইমান বলছে, তারা মেদিনীপুর ও রাজ্য থেকেই মুছে যাবে”, মুখ খুললেন শিশির অধিকারী

এদিকে, করোনা ভ্যাকসিন হিসেবে দেশে সবার আগে; ছাড়পত্র পেল কোভিশিল্ড। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে খবর, জরুরি ক্ষেত্রে ব্যবহারের জন্য; ভ্যাকসিনের অনুমোদন দিয়েছে ড্রাগ কন্ট্রোলার জেনারেল অব ইন্ডিয়া (ডিসিজিআই)। অক্সফোর্ডের সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে; এই ভ্যাকসিন তৈরি করেছে সিরাম ইনস্টিটিউট। পুণের এই সংস্থার দাবি; প্রায় ৫ কোটি ডোজ তৈরি; ভারতের জন্য।

বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী মোদী জানিয়েছিলেন যে; ” ভারতে দ্রুত ভ্যাকসিন আসতে চলেছে”। এরপর শুক্রবারই কোভ্যাকসিন ও আমেরিকার ফাইজারকে পিছনে ফেলে; ভারতের সবার আগে ছাড়পত্র পেল; অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি ভ্যাকসিন। সূত্রের খবর, কবে থেকে এবং কীভাবে ভ্যাকসিনের প্রয়োগ হবে; তা আগামী সপ্তাহে ঘোষণা করা হতে পারে। স্বাস্থ্যমন্ত্রক সূত্রে খবর, ভ্যাকসিনের ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার পাবেন; স্বাস্থ্যকর্মী ও করোনাযোদ্ধারা। মহড়া তাদের দিয়েই শুরু হল। তারপর দেশজুড়ে হবে গণ টিকাকরণ।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন