মাঝ আকাশেই ধ্বংস হবে শত্রুপক্ষের বিমান, চাঁদিপুরে শক্তি পরীক্ষায় সফল ভারতের নতুন মিসাইল

4690
মাঝ আকাশেই ধ্বংস হবে শত্রুপক্ষের বিমান, চাঁদিপুরে শক্তি পরীক্ষায় সফল ভারতের নতুন মিসাইল
মাঝ আকাশেই ধ্বংস হবে শত্রুপক্ষের বিমান, চাঁদিপুরে শক্তি পরীক্ষায় সফল ভারতের নতুন মিসাইল

মাঝ আকাশেই ধ্বংস হবে শত্রুপক্ষের বিমান; চাঁদিপুরে শক্তি পরীক্ষায় সফল ভারতের নতুন মিসাইল। ওডিশার চাঁদিপুর থেকে উৎক্ষেপণ করা হয়; ‘আকাশ প্রাইম’ সুপারসনিক মিসাইল। ফের একবার শক্তি পরীক্ষায়, সফল ভাবে উত্তীর্ণও হল; আকাশ মিসাইলের নতুন ভার্সন। ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশনের (DRDO) তৈরি এই মিসাইল; আগেই ভারতীয় সেনার অন্যতম সেরা অস্ত্র হিসেবে সাফল্যের প্রমাণ দিয়েছে। এবার পরীক্ষা করা হল; আকাশের নতুন ভার্সান। নয়া এই মিসাইলকে, টেস্টের সময়; মাঝ-আকাশে একটি টার্গেট তৈরি করে দেওয়া হয়। অনায়াসে সেই নিশানা ধ্বংস করে; নিজের যোগ্যতার প্রমাণ দেয় আকাশ প্রাইম।

আকাশ মিসাইল; দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি। গত জুলাই মাসেও, আরও একটি আকাশ মিসাইল পরীক্ষায় সফল হয় ডিআরডিও। ২০১৫ সালেই আনুষ্ঠানিকভাবে, স্থলসেনা ও বায়ুসেনায়; অন্তর্ভুক্ত হয় আকাশ মিসাইল সিস্টেম। এটিও ব্রহ্মস মিসাইলের মতোই; সুপারসনিক ক্যাটেগরির। কিছুদিন আগেই, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর উপস্থিতিতেই; মন্ত্রীসভার ক্যাবিনেট বৈঠকে ‘আকাশ’ মিসাইলের প্রযুক্তি অন্যান্য দেশে; রফতনির ক্ষেত্রে শিলমোহর দেওয়া হয়।

২০২৫ সাল পর্যন্ত, আকাশ মিসাইল রফতানি করে; ৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার (প্রায় ৩৬ হাজার কোটি) আয়ের লক্ষমাত্রা স্থির করেছে কেন্দ্র সরকার। এখনও পর্যন্ত প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে; শুধুমাত্র যন্ত্রাংশ রফতানি করে ভারত। কিন্তু এবার আকাশ মিসাইল রফতানিতে; সবুজ সংকেত দিয়েছে কেন্দ্র। চিনকে নজরে রেখে ভিয়েতনাম ও ইন্দোনেশিয়াকেও; আকাশ এয়ার ডিফেন্স সিস্টেম দেওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে ভারতের।

আরও পড়ুনঃ কংগ্রেসে যোগ দেবেন বলে, পার্টি অফিস থেকে এসি খুলে নিয়ে গেলেন ‘আজাদি’ চাওয়া বাম নেতা

এবার ঠিক যে ভাবে মাঝ আকাশে ধাওয়া করে শত্রুপক্ষের বিমান; ঠিক সেইভাবেই এক নকল নিশানা তৈরি করেছিল ডিআরডিও। প্রথমবার মিসাইল উৎক্ষেপণেই, সেই কঠিন নিশানা; সহজেই ধ্বংস করেছে আকাশ প্রাইম মিসাইল। নতুন এই মিসাইলে রয়েছে, দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি; অ্যাকটিভ রেডিও ফ্রিকোয়েন্সি। যে প্রযুক্তি আগে তৈরি; অন্যান্য আকাশ মিসাইলে নেই।

ডিআরডিও-র তরফে জানানো হয়েছে যে, অনেক কম তাপমাত্রায় ও অধিক উচ্চতায়; সহজেই লক্ষ্যভেদ করতে পারে আকাশ প্রাইম। আকাশ মিসাইলের এই সাফল্যের জন্য; ডিআরডিও-কে অভিনন্দন জানিয়েছে ভারতীয় সেনা, ভারতীয় বায়ুসেনা। প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং বলেন, “আকাশ প্রাইম মিসাইলের সাফল্য, প্রমাণ করে দিল যে; ডিআরডিও বিশ্বমানের মিসাইল তৈরিতে সক্ষম”।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন