পরীক্ষা বাতিল, স্কুল লোকাল ট্রেন বন্ধ, বাংলার ফের ভোটের প্রস্তুতি শুরু

1743
পরীক্ষা বাতিল, স্কুল লোকাল ট্রেন বন্ধ, বাংলার ফের ভোটের প্রস্তুতি শুরু
পরীক্ষা বাতিল, স্কুল লোকাল ট্রেন বন্ধ, বাংলার ফের ভোটের প্রস্তুতি শুরু

পরীক্ষা বাতিল, স্কুল লোকাল ট্রেন বন্ধ; কিন্তু বাংলার ফের ভোটের প্রস্তুতি শুরু। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে, একযোগে কলকাতায় ও দিল্লিতে তৃণমূলের আন্দোলনের পরেই; নড়েচড়ে বসল দেশের নির্বাচন কমিশন। শুক্রবার নির্বাচন কমিশন, রাজ্যের যে সাত বিধানসভা আসনে উপ-নির্বাচন হবে; সেখানকার নির্বাচনী আধিকারিকদের সঙ্গে কথা বলেন। নির্বাচন কমিশন কথা বলে; সংশ্লিষ্ট জেলার জেলাশাসক-দের সঙ্গে। মনে করা হচ্ছে, খুব তাড়াতাড়ি বাংলার সাত বিধানসভা আসনে; নির্বাচনের নির্ঘণ্ট ঘোষণা করবে নির্বাচন কমিশন।

“বাংলায় করোনা নিয়ন্ত্রণে; ভয়ে উপনির্বাচন করছে না বিজেপি”; নবান্নে জানিয়ে দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা। “কোভিড নিয়ন্ত্রণে, অনেক জায়গায় জিরো; উপনির্বাচন হতেই পারে”; ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর। তিনি আগেই জানিয়েছিলেন যে, করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে; নির্বাচন কমিশন সাতদিনের নোটিশে উপনির্বাচন করাতে পারে। তবে লোকাল ট্রেন চালানো নিয়ে সেই মমতাই বলেছেন; “এখন ট্রেন চললে দুনিয়ার লোকের কোভিড হবে; তখন দায় কে নেবে?”

আরও পড়ুনঃ মমতা চান বিধানসভা উপনির্বাচন, বিজেপির লক্ষ্য পুরসভা নির্বাচন, বাংলার মানুষের দাবি লোকাল ট্রেন

শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় ভবানীপুর বিধানসভা থেকে জিতেও; মুখ্যমন্ত্রী মমতার জন্য ওই কেন্দ্র ছেড়ে দিয়েছেন। জঙ্গিপুরসামশেরগঞ্জ আসনে; তৃণমূল প্রার্থীদের মৃত্যুর কারণে ভোট হয়নি। আর খড়দহ কেন্দ্রে বিজয়ী প্রার্থী কাজল সিনহা; ভোটের পরে ফলাফল ঘোষণার আগেই; করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যান। আবার সাংসদ থেকে যাওয়ার পরে, দলীয় সিদ্ধান্তে দিনহাটাশান্তিপুর আসন থেকে পদত্যাগ করেছেন; বিজেপির সাংসদ নিশীথ প্রামাণিক ও জগন্নাথ সরকার। তাই উপনির্বাচন হবে; ওই দুই আসনেও। তৃণমূলের বিধায়ক জয়ন্ত নস্কর মারা যাওয়ায়; দক্ষিণ ২৪ পরপগনার গোসাবা আসনেও; উপনির্বাচন হবে।

মুখ্যমন্ত্রী হলেও; এখনও নির্বাচিত নন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ছয়মাসের মধ্যে তাঁকে কোন বিধানসভা আসন থেকে; নির্বাচিত হয়ে আসতেই হবে। কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন; কবে উপনির্বাচনের দিন ঘোষণা করবে?‌ শাসক দল; এর উত্তর খুঁজছে। ৫ নভেম্বরের মধ্যে মুখ্যমন্ত্রীকে ভোটে জিতে; বিধায়ক হওয়ার শর্তপূরণ করতে হবে। রাজ্যের ৭টি বিধানসভা কেন্দ্রে অবিলম্বে ভোটের দাবি জানিয়ে; বৃহস্পতিবার জাতীয় নির্বাচন কমিশনে যান; তৃণমূল সাংসদরা। এদিকে মাধ্যমিক উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা; ইতিমধ্যেই বাতিল হয়েছে। আর এখনও করোনা আছে বলে; বন্ধ হয়ে আছে বাংলার মানুষের লাইফলাইন ‘লোকাল ট্রেন’। অবিশ্বাস্য! বলছে বাংলার আমজনতা।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন