পুরসভার টেন্ডার দুর্নীতিকাণ্ডে তৃণমূলের প্রাক্তন মন্ত্রী, বর্তমানে বিজেপির শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের ‘কীর্তিকলাপ’

2457
পুরসভার টেন্ডার দুর্নীতিকাণ্ডে তৃণমূলের প্রাক্তন মন্ত্রী, বর্তমানে বিজেপির শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের 'কীর্তিকলাপ'
পুরসভার টেন্ডার দুর্নীতিকাণ্ডে তৃণমূলের প্রাক্তন মন্ত্রী, বর্তমানে বিজেপির শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের 'কীর্তিকলাপ'

পুরসভার টেন্ডার দুর্নীতিকাণ্ডে তৃণমূলের প্রাক্তন মন্ত্রী; বর্তমানে বিজেপির শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের ‘কীর্তিকলাপ’ দেখে হতবাক পুলিশ। দীর্ঘদিনের তৃণমূল বিধায়ক মন্ত্রী, বিজেপিতে যোগ দেওয়ার পরে; অভিযুক্ত হয়ে হাজতে। বিষ্ণুপুর পুরসভার টেন্ডার দুর্নীতিকাণ্ডে; প্রাক্তন মন্ত্রী শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের গ্রেফতারের ঘটনায়; উঠে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য। আপাতত ৪ দিনের পুলিশ হেফাজতে রয়েছেন; তৃণমূল ঘুরে বিজেপিতে আসা শ্যামাপ্রসাদ। পুলিশের দাবি, বিধানসভা ভোটের আগে সন্দেহজনক অ্যাকাউন্টে; বিপুল অঙ্কের টাকা লেনদেন হয়েছে। এত টাকা কোথা থেকে কী কারণে জমা পড়েছে; সেটাই প্রাক্তন বিধায়ক ও মন্ত্রীর কাছে জানতে চাইবেন তদন্তকারীরা।

পাশাপাশি, প্রাক্তন মন্ত্রীর একাধিক আয় বহির্ভূত সম্পত্তি; পেট্রোল পাম্পের হদিশ মিলেছে। এনিয়ে প্রাক্তন মন্ত্রী শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের ছেলে; ও আত্মীয়দের জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ। হিসাব বহির্ভূত অর্থ মেলায়, ইতিমধ্যেই প্রাক্তন তৃণমূল বিধায়কের; ৬টা ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট ফ্রিজ করা হয়েছে। কয়েকটি ভুয়ো অ্যাকাউন্টেরও; হদিশ মিলেছে বলে পুলিশের দাবি।

আরও পড়ুনঃ শিক্ষিকাদের বিষ খাওয়ার কারণ, হাইকোর্টে মামলা করার আগেই পুলিশের হাতে গ্রেফতার মইদুল

আর্থিক তছরুপের অভিযোগে, তৃণমূল জামানার প্রাক্তন মন্ত্রী; শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়কে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুরসভার আর্থিক তছরুপের ঘটনায় গ্রেফতার হয়েছেন; রাজ্যের প্রাক্তন বস্ত্র ও আবাসন মন্ত্রী। বিভিন্ন সরকারি প্রকল্পে, তিনি প্রায় দশ কোটি টাকারও বেশি; আর্থিক অনিয়ম করেছেন বলে অভিযোগ। রবিবার বাঁকুড়ার জেলা পুলিশ; বিষ্ণুপুরের প্রাক্তন বিধায়ককে গ্রেফতার করে।

বিভিন্ন সময়ে পুরসভার টেন্ডার সংক্রান্ত আর্থিক বিষয়েও; ১০ কোটি টাকার তছরুপের অভিযোগ। দীর্ঘদিন তদন্তের পর, প্রাক্তন মন্ত্রীর বিরুদ্ধে সরাসরি তছরুপের যোগ থাকায়; তাঁকে গ্রেফতার করেছে বাঁকুড়া পুলিশ আধিকারিকেরা। অনেকদিন ধরেই টেন্ডার পাস করিয়ে দেওয়ার নামে; কোটি কোটি টাকার প্রতারণার অভিযোগ আসছিল। তবে যতদিন শাসক দলের নেতা ছিলেন; ততদিন পুলিশ খতিয়ে দেখেনি তাঁর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট।

এবারে বিধানসভা ভোটের আগে, পালাবদলের মরশুমে; শুভেন্দু অধিকারীর হাত ধরে তিনি বিজেপিতে যোগ দেন। এরপরেই শুরু হয়; পুলিশি তদন্ত। শ্যামাপ্রসাদের গ্রেফতারের পরই, তাঁর ছেলে শুভ মুখোপাধ্যায় জানান; “আমি জানি না, কেন বাবাকে; গ্রেফতার করা হয়েছে”। বিজেপির রাঢ়বঙ্গ জ়োনের অবজার্ভার পার্থ কুণ্ডু বলেন; “যতদিন তৃণমূলে ছিলেন, ততদিন তাঁর বিরুদ্ধে; কোনও অভিযোগ ছিল না। এখন বিজেপিতে আসার পরই; সব অভিযোগ”।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন