সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ উড়িয়ে, প্রজাতন্ত্র দিবসের সরকারি ট্যাবলো-তে মমতার মুখ

4009
'ডিগনিটি', সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ উড়িয়ে, প্রজাতন্ত্র দিবসের সরকারি ট্যাবলো-তে মমতার মুখ
'ডিগনিটি', সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ উড়িয়ে, প্রজাতন্ত্র দিবসের সরকারি ট্যাবলো-তে মমতার মুখ

প্রজাতন্ত্র দিবসের সরকারি অনুষ্ঠানে; ‘ডিগনিটি’র কথা বলেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তারপরেই, সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ উড়িয়ে; প্রজাতন্ত্র দিবসের সরকারি ট্যাবলো-তে মমতার মুখ! সরকারি অনুষ্ঠানে ‘ডিগনিটি’ কোথায়? এবার প্রশ্ন তুলেছে বিজেপি। প্রজাতন্ত্র দিবসে রেড রোডের কুচকাওয়াজে, এবার নজর কাড়ল; মুখ্যমন্ত্রীর ‘সাধের’ দুই প্রকল্প দুয়ারে সরকার ও পাড়ায় সমাধানের ট্যাবলো। মূলত, এই দুই প্রকল্পকে তুরুপের তাস করে; আগামী বিধানসভা ভোটে লড়াইয়ের ময়দানে নেমেছে শাসকদল। এদিকে, সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ রয়েছে; “সরকারি বিজ্ঞাপনে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী বা ভারতের প্রধান বিচারপতি ছাড়া; আর কারও ছবিই ব্যবহার করা যাবে না”।

রেড রোডে প্রজাতন্ত্র দিবসের কুচকাওয়াজে; মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দুয়ারে সরকার প্রকল্পের ট্যাবলো স্থান পেয়েছে। এছাড়াও কন্যাশ্রী এবং সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের ট্যাবলো; স্থান পেয়েছে কুচকাওয়াজে। দুয়ারে সরকারের ট্যাবলোয়; মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বড়সড় ছবি নিয়ে উঠছে প্রশ্ন।

২০১৫ সালেই এক নির্দেশে, সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছে; সরকারি বিজ্ঞাপনে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী বা ভারতের প্রধান বিচারপতি ছাড়া; আর কারও ছবিই ব্যবহার করা যাবে না। বাদ পড়বেন মুখ্যমন্ত্রী, রাজ্যপাল বা কেন্দ্রীয় মন্ত্রীরা। এই নির্দেশের পর, সরকারি অনুষ্ঠানে পশ্চিমবঙ্গে মমতার ছবিওয়ালা; সরকারি বিজ্ঞাপনগুলিও বাতিল করতে হত। কিন্তু সেটা হয় নি। রাজ্য সরকার কি করে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ অমান্য করল? প্রশ্ন উঠেছে।

আরও পড়ুনঃ কে ‘থাকছে’ কে ‘পালাচ্ছে’, হিসাব রাখতে শাহের সভার আগেই কালীঘাটে ‘রোল কল’ বৈঠক মমতার

সুপ্রিম কোর্ট তার নির্দেশে বলেছে; “মহাত্মা গান্ধীর মতো প্রয়াত নেতার ক্ষেত্রে; কোন সমস্যা নেই। কিন্তু জীবিত নেতানেত্রীদের মধ্যে; একমাত্র রাষ্ট্রপতি, ভারতের প্রধান বিচারপতি এবং প্রধানমন্ত্রীর ছবিই; তাঁদের অনুমতি সাপেক্ষে সরকারি বি়জ্ঞাপনে ব্যবহার করা যাবে। সুতরাং শুধু পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর ছবি নয়; কোনও সরকারি বিজ্ঞাপনেই কোনও মুখ্যমন্ত্রী, রাজ্যপাল বা কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর ছবি থাকার নয়। কি করে প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে; সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ ভাঙা হল? ডিগনিটি কোথায়? উঠেছে প্রশ্ন।

তৃণমূল মুখপাত্র ও রাজ্যসভার নেতা ডেরেক ও’ব্রায়েন বলেন; “খোঁজ নিয়ে দেখেছি; এই নিষেধাজ্ঞা শুধুমাত্র কেন্দ্রীয় সরকারের জন্য। রাজ্য সরকারের সঙ্গে; এর কোনও সম্পর্ক নেই”। কিন্তু এই মামলার অন্যতম আইনজীবী মীরা ভাটিয়ার যুক্তি; “কেন্দ্র, রাজ্য বা যে কোনও সরকারি প্রতিষ্ঠানের ক্ষেত্রেই; সুপ্রিম কোর্টের এই নিষেধাজ্ঞা প্রযোজ্য”।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন