সীমান্ত পাহারার নামে ঢুকে পড়ল ভারতে, চিনা সেনার কুবুদ্ধি ধরে ফেলে তাড়াল ভারতীয় সেনা

3328
সীমান্ত পাহারার নামে ঢুকে পড়ল ভারতে, চিনা সেনার কুবুদ্ধি ধরে ফেলে তাড়াল ভারতীয় সেনা
সীমান্ত পাহারার নামে ঢুকে পড়ল ভারতে, চিনা সেনার কুবুদ্ধি ধরে ফেলে তাড়াল ভারতীয় সেনা

ফের মুখোমুখি ভারত ও চিনের সেনা; লাদাখের পরে এবার অরুণাচল প্রদেশে। সীমান্ত পাহারার নামে লাল সেনা ঢুকে পড়ল ভারতে; চিনা সেনার কুবুদ্ধি ধরে ফেলে তাড়াল ভারতীয় সেনা। অরুণাচল প্রদেশের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখায়, প্রায় ২০০ চিনা ফৌজের; উপস্থিতির খবর পাওয়া যায়। সঙ্গে সঙ্গেই তাদের বাধা দেয়; ভারতীয় সেনা। দুই দেশের সেনাবাহিনী মুখোমুখি হলেও, এবার আর সংঘর্ষে না জড়িয়ে; ভারতের তরফে আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করে নেওয়া হয়েছে। আসলে চিনা সেনাদের ভাগিয়ে দেয়; ভারতের সেনা।

জানা গিয়েছে, গত সপ্তাহেই অরুণাচল প্রদেশ সীমান্তে; রুটিনমাফিক টহলদারির সময় প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখার ভারতীয় অংশের অনেকটা কাছাকাছি এসে পড়ে; চিনের লাল ফৌজ। সূত্রের দাবি, ভারতীয় সেনা প্রায় ২০০-র কাছাকাছি চিনা সেনাকে; সীমান্ত অতিক্রম করে ভারতের মাটিতে ঢুকতে বাধা দেয়। তারপরেই শুরু হয়; মুখোমুখি ঝামেলা। তবে এবার আর রক্তাক্ষয়ি সংঘর্ষ হয়নি। আলোচনার পরেই; ফিরে যায় চিনা সেনা।

আরও পড়ুনঃ পাক জঙ্গিদের নামে, বেছে বেছে আলাদা করে ফের হিন্দুদের মারা হচ্ছে কাশ্মীরে

সূত্রের খবর, তাওয়াং সেক্টরে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখার অত্যন্ত কাছাকাছি চলে আসে; ২০০ চিনা ফৌজের একটি বাহিনী। তবে ভারতের সতর্ক সেনারা; তাদের ওখানেই আটকে দেয়। ফলে আবারও মুখোমুখি চলে আসে; দুই দেশের সেনা। ক্রমে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে পরিস্থিতি; শুরু হয় বাকবিতণ্ডা, যা ধাক্কাধাক্কি পর্যন্ত গড়ায়। গত সপ্তাহে হওয়া এই সংঘাত চলে; বেশ কয়েক ঘণ্টা। কিন্তু সঠিক সময়ে স্থানীয় কমান্ডারদের হস্তক্ষেপে; পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। তবে এবার আর দুই দেশের; কোন সৈনিক আহত হয়নি।

আরও পড়ুনঃ সামনের আসন থেকে পিছনের সারিতে, বাবুলের পরিণতি

তবে পূর্ব লাদাখের গালওয়ানের ঘটনা থেকে শিক্ষা নেওয়ায়; এবার আর চিনা বাহিনী সরাসরি সংঘর্ষে জড়ায়নি। দুই দেশের সেনাবাহিনীর কম্যান্ডারদের খবর দেওয়া হলে; তারা আলোচনার মাধ্যমে ওই সমস্যার সমাধান করে নেন বলেই জানা গিয়েছে। সূত্র মারফত জানা গিয়েছে, প্রায় কয়েক ঘণ্টা ধরে ধাপে ধাপে; দুই দেশের সেনা প্রত্যাহারের কাজ চলে সেনার প্রোটোকল মেনেই। তবে অরুনাচলে যে কোনদিন, বড় কোন ঘটনা ঘটতেই পারে; এমনটাই মনে করছে আন্তর্জাতিক মহল।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন