টানা সাত বছর ধরে নিজের দাদাদের হাতেই ১৭ বছরের কিশোরী

2391
টানা সাত বছর ধরে নিজের দাদাদের হাতেই ১৭ বছরের কিশোরী/The News বাংলা
টানা সাত বছর ধরে নিজের দাদাদের হাতেই ১৭ বছরের কিশোরী/The News বাংলা

টানা সাত বছর ধরে নিজের দাদাদের হাতেই; যৌন লালসার শিকার ১৭ বছরের কিশোরী। অভিভাবকদের উদাসীনতাই কাল হল কিশোরীর। টানা সাত বছর ধরে নিজের দাদাদের হাতেই লালসার শিকার ওই কিশোরী। অভিযোগ পেয়ে ৭ বছর পর শুরু হয়েছে পুলিশী তদন্ত।

দীর্ঘ সাত বছর ধরে নিজের কাকার দুই ছেলে ও জেঠুর এক ছেলের হাতে যৌন লালসার শিকার নাবালিকা একটি মেয়ে। এখন এই মেয়েটির বয়স ২৪ বছর। অভিযোগ ২০০৭ সাল থেকে তার তিন দাদা যখনই তার বাড়িতে আসত; তখনই তার শ্লীলতাহানি করত। বহুবার নিজের বাবা-মাকে বলার চেষ্টা করেছে ওই নাবালিকা; কিন্তু বাবা-মা কোনরকমভাবে বিশ্বাস করেনি তার কথা।

২০১৪ সালের পর থেকে; সে একটু বড় হবার পর, যদিও এই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হয়নি। তবুও ভিতরে ভিতরে ক্ষোভ ছিল সেই মেয়েটির। এখন তার বয়স ২৪ বছর। গত শুক্রবার তার মা হঠাৎই; খবরের কাগজে অন্য কোন একটি ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্তদের অ্যারেস্ট এর কথা বলছিল। সেই সময় হঠাৎই মেয়েটি মায়ের কাছে বলে বসে; “তোমার মেয়েও কিন্তু এই সমান ঘটনার শিকার”।

মা তখন জিজ্ঞাসা করে কি হয়েছে? তখন ওই মেয়েটি তার জীবনে ঘটে যাওয়া পুরো ঘটনাটি; নিজের মাকে বলে। ২০০৭ সাল থেকে ২০১৪ পর্য্যন্ত তার দাদারা তার সঙ্গে এই যৌন হেনস্থা করেছে বলে অভিযোগ করে সে।

তারপরেই মা ও মেয়ে দুজনে চলে যায় রিজেন্ট পার্ক থানায়। অভিযোগ করা হয় পুলিশের কাছে। অভিযোগের ভিত্তিতে; ওই মেয়েটির তিন দাদাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তাদের আলিপুর আদালতে তোলা হয়। রিজেন্ট পার্ক থানার; রিজেন্ট কলোনির এই ঘটনায় শোরগোল পরে গেছে এলাকায়। সমাজে অবক্ষয়ের আরও একটা প্রমাণ; দাবি করেছে সমাজবিদরা।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন