মমতার আন্দোলন কি অকারণ, কোন দুর্গা পুজোকে নোটিশ দেয়নি আয়কর দফতর

118
মমতার আন্দোলন কি অকারণ, কোন দুর্গা পুজোকে নোটিশ দেওয়া হয়নি জানাল আয়কর দফতর/The News বাংলা
মমতার আন্দোলন কি অকারণ, কোন দুর্গা পুজোকে নোটিশ দেওয়া হয়নি জানাল আয়কর দফতর/The News বাংলা

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে কলকাতা দুর্গা পুজো কমিটিগুলিকে; আয়কর নোটিশ দেবার প্রতিবাদে শুরু হয়েছে আন্দোলন। নেত্রীর নির্দেশে; ধর্নায় বসেন তৃণমূলের মহিলা বাহিনী। মমতার দাবি; কেন্দ্রীয় সরকার দুর্গাপুজো কমিটিগুলোর ওপর ইনকাম ট্যাক্স চাপাতে চলেছে। যার ব্যয়ভার বহন করা পুজো কমিটিগুলির পক্ষে সম্ভব না। সেই ট্যাক্স তুলে নেওয়ার দাবিতে; ধর্নায় বসে মমতার তৃণমূল। ১২ই আগষ্ট মাননীয়া জানিয়েছিলেন; “আয়কর দপ্তর দুর্গাপুজো কমিটিগুলোকে কর দেওয়ার জন্য নোটিশ পাঠিয়েছে”। কিন্তু সিবিডিটি জানাল; ঠিক উল্টো্টা।

মমতার বক্তব্য; “আমরা আমাদের সব জাতীয় উৎসবকে নিয়েই গর্বিত। পুজোয় কর বহন করা পুজো কমিটির পক্ষে সম্ভব হবে না”। মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রীর ফেসবুক পোস্টের পর; ট্যাক্স সংক্রান্ত বিষয়টা নিয়ে আন্দোলনে নামে তৃণমূল। সমর্থন জানায় পুজো উদ্যোক্তারা। এরপরই শুরু হয় মমতার ধর্না।

আরও পড়ুনঃ নিজের প্রিয় দুই নারীকে নিয়ে বিজেপিতে শোভন

মুখ্যমন্ত্রীর ধর্নার পর; সাধারণ মানুষের কাছে পরিষ্কার করে বিষয়টা জানাতে; সেন্ট্রাল বোর্ড অফ ডিরেক্ট ট্যাক্সেস একটি নোটিশে স্পষ্ট ভাবে ঘোষণা করে; একটা ভুল নোটিশ ছড়িয়ে পরেছে মিডিয়ায়। বস্তুত এই বছরে পুজো কমিটিগুলিকে এখনও অবধি কোনরকম নোটিশ পাঠানোই হয়নি। পুরোটাই সাজানো। নোটিশ দেওয়া হয়েছে; ঠিকেদারি সংস্থাদের।

ট্যাক্সের বিষয়ে হইচই ছড়িয়ে পরার পর; সিবিডিটি থেকে পাঠানো নোটিসে এও বলা হয়েছে যে; ২০১৮ সালে ৩০টি পুজো কমিটিকে নোটিশ পাঠানো হয়েছিল; সংবিধানের ১৩৩(৬) ধারা অনুযায়ী। কারণ সেইসব পুজো কমিটিগুলো; টিডিএস সংক্রান্ত ফাইল জমা করছে না।

পুজো কমিটির সদস্য এবং ব্যবস্থাপণার দায়িত্বে যারা আছেন; তারাও সময়মতো টিডিএস ট্যাক্স কাটার স্টেটমেন্ট জমা করছেন না; বা টিডিএস কাটছেনই না। ১৬ই জুলাই ২০১৯ সালে বেশ কিছু পুজো কমিটির আবেদনে; ট্যাক্স দফতর থেকে টিডিএস স্টেটমেন্ট সহ যাবতীয় নথি নিয়ে আলোচনা করা হয়। সেখানে পুজো কমিটির সদস্যদের; সমস্ত বিষয়টি ভাল করে বুঝিয়েও দেওয়া হয়।

এখন সিবিডিটি নতুন করে; কোন পুজো কমিটিকে ট্যাক্স সংক্রান্ত কোন নোটিশ দেয় নি। বরং যে সমস্ত পুজো কমিটি বিগত কয়েক বছরের টিডিএস ট্যাক্স এখনো জমা দেয়নি; তাদের নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে ট্যাক্স জমা দিতে বলেছে এই নোটিশে। তাহলে মাননীয়ার ধর্নার কারণ কি? শুধুই কি রাজনীতি? এখন সেই প্রশ্নই উঠছে।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন