কমল স্বল্প সঞ্চয়, পিপিএফে সুদের হার, বাংলার ভোটের মধ্যেই ধাক্কা দিল মোদী সরকার

694
কমল স্বল্প সঞ্চয়, পিপিএফে সুদের হার, বাংলার ভোটের মধ্যেই ধাক্কা দিল মোদী সরকার
কমল স্বল্প সঞ্চয়, পিপিএফে সুদের হার, বাংলার ভোটের মধ্যেই ধাক্কা দিল মোদী সরকার

জোড়া ধাক্কা দিল মোদী সরকার। বাংলার ভোটের মধ্যেই স্বল্প সঞ্চয়; পিপিএফ-এ সুদের হার কমাল কেন্দ্রীয় সরকার। ফের নিম্নবিত্ত ও মধ্যবিত্তর মানুষকে; সমস্যায় ফেলল কেন্দ্র। মধ্যবিত্তের সঞ্চয়ে ফের কোপ মারল কেন্দ্র সরকার। স্বল্প সঞ্চয়ে সুদের হার; ০.৫ শতাংশ কমানোর সিদ্ধান্ত নিল মোদী সরকার। এর ফলে, স্বল্প সঞ্চয়ে সুদের হার ৪ শতাংশ থেকে; কমে হচ্ছে ৩.৫ শতাংশ। এখানেই শেষ নয়। কোপ পড়েছে পিপিএফ-এর সুদের হারেও। এক্ষেত্রে পিপিএফ-এর সুদের হার ৭.১ শতাংশ থেকে কমিয়ে; ৬.৪ শতাংশ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্র। ১ এপ্রিল থেকে এই নতুন হার কার্যকর হচ্ছে।

গত কয়েকদিন ধরে যেটা আশঙ্কা করা হচ্ছিল; সেটাই বাস্তবায়িত হল। স্বল্প সঞ্চয়ে ও পিপিএফে ফের; সুদ কমিয়ে দিল কেন্দ্র। সাধারণ মানুষকে; জোড়া ধাক্কা দিল মোদী সরকার। শুধু তাই নয়। এছাড়াও, মেয়াদী জমার ক্ষেত্রেও; সুদের হার কমানো হচ্ছে। এক্ষেত্রে ত্রৈমাসিক হার ৫.৫ শতাংশ থেকে কমিয়ে; ৪.৪ শতাংশ করা হয়েছে। বাদ যাচ্ছেন না প্রবীণ নাগরিকরাও। সিনিয়র সিটিজেন্সদের বিভিন্ন সঞ্চয় প্রকল্পের সুদের হার; ৭.৪ শতাংশ থেকে কমিয়ে ৬.৫ শতাংশ করা হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ মুসলিম ভোটের ভরসায়, নন্দীগ্রামে শুভেন্দুকে হারাতে পারবেন মমতা

স্বল্প সঞ্চয়, পিপিএফে সুদের হার কমাল মোদী সরকার

মোদী সরকারের এই সিদ্ধান্ত, দুশ্চিন্তায় ফেলল; আমানতকারীদের। কেন্দ্রীয় সরকারি এমন পদক্ষেপে, অসুবিধায় পড়বেন; গোটা দেশের বেশ কয়েক লক্ষ আমানতকারী। আর যাদের একটা অংশ অবশ্যই; দেশের প্রবীণ বা বরিষ্ঠ নাগরিক। ২০২০ র ১ লা এপ্রিল, ঠিক একবছর আগেই; এইরকম সুদ কমিয়েছিল কেন্দ্রীয় সরকার। লকডাউনের মধ্যেই ফের; ধাক্কা খেয়েছিল সাধারণ মধ্যবিত্ত।

আরও পড়ুনঃ “২৩০ আসন না পেলে, বিধায়ক কিনে সরকার ফেলে দেবে বিজেপি”, আশঙ্কা মমতার

এবার নতুন আর্থিক বছরের শুরুতে ফের; সেই এক কাজ করল কেন্দ্র। ১লা এপ্রিল থেকেই শুরু নয়া অর্থবর্ষের প্রথম ত্রৈমাসিকের জন্য; স্বল্প সঞ্চয় ও পিপিএফের সুদ কমাল কেন্দ্র। এই ঘোষণার পরেই; মোদী সরকারের সমালোচনা শুরু করেছে কংগ্রেস সহ বিরোধীরা। বাংলার ভোটেও পরের দফা ইলেকশনে; তৃণমূল যে এটাকেও হাতিয়ার করবে; তা বলার অপেক্ষা রাখে না। কিন্তু যাই হোক; ফের চরম সমস্যায় পরল; ভারতের সাধারণ মানুষ।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন