“চাণক্য নয়, মুকুল রায় মীরজাফর”, আবার কি ‘ভাগ মুকুল ভাগ’

483
"চাণক্য নয়, মুকুল রায় মীরজাফর", বিস্ফোরক সৌমিত্র খাঁ

“চাণক্য নয়, মুকুল রায় মীরজাফর”; বি’স্ফোরক বিজেপি যুব সভাপতি সৌমিত্র খাঁ। আবার কি তাহলে, ‘ভাগ মুকুল ভাগ’; শুরু হল বিজেপিতে? উঠে গেছে প্রশ্ন। বিজেপি-র সঙ্গে যখন মুকুল রায়ের দূরত্ব বাড়ছে; ঠিক তখনই সল্টলেকে তাঁর বাড়িতে হাজির হয়েছিলেন বিজেপি যুব মোর্চার রাজ্য সভাপতি সৌমিত্র খাঁ। এরপরই মুকুলের সঙ্গে তাঁকে নিয়েও; জল্পনা ছড়িয়েছিল রাজ্য রাজনীতিতে। কিন্তু ফের তৃণমূলে ফেরা প্রসঙ্গে, সৌমিত্র বলেছিলেন; “অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় যেদিন বিজেপিতে আসবেন; আমি সেদিন তৃণমূলে যাব”। অর্থাৎ, সৌমিত্র দল ছাড়বেন না বলে; স্পষ্ট হয়ে যায় সেই সময়ই। এদিন মুকুল রায়কে মীরজাফর বলে; সেটাই আবার বুঝিয়ে দিলেন সৌমিত্র খাঁ।

শুক্রবার যখন নিজের পুরনো দলে ফিরে আসছেন মুকুল; সেই সময় দিল্লি থেকে সৌমিত্র খাঁ বললেন; “মুকুল রায় কোনও চাণক্য নন; উনি মীরজাফর। এটা আজ প্রমাণিত হয়ে গেল”। শুধু তাই নয়, বীজপুর কেন্দ্র থেকে মুকুল-পুত্র শুভ্রাংশুর পরাজয় নিয়েও; এদিন সুর চড়ান সৌমিত্র। তিনি বলেন, “নিজের জায়গা বীজপুর থেকে; নিজের ছেলেকেই জেতাতে পারেননি মুকুল রায়। তাই তিনি কোনও মতেই চাণক্য নন”।

আরও পড়ুনঃ মুকুল রায়ের সঙ্গে কোন কোন বিজেপি নেতা ফিরছেন তৃণমূলে

অথচ গত রবিবারই নিজের সংসদীয় এলাকায়; বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের বৈঠকে উপস্থিত না থেকে; তিনি গিয়েছিলেন মুকুল রায়ের সঙ্গে দেখা করতে। যদিও সেই বৈঠক থেকে বেরিয়েই তিনি বলে দিয়েছিলেন; “বিজেপি ছাড়ার কোনও মানসিকতা আমার নেই”। সেই সঙ্গে জানিয়েছিলেন, “মুকুল দার কাছে আমার রাজনীতির হাতেখড়ি। কাকিমার শরীর খারাপ শুনলাম। তাই খোঁজখবর নিতে এসেছি। রাজনীতি নিয়েও আলোচনা হয়েছে”।

আরও পড়ুনঃ নোংরা লবিবাজি করে বিজেপিতে বসিয়ে রাখা হয়েছিল মুকুলকে, মুখ খুললেন অনুপম

সেই মুকুল রায়কেই এদিন; মীরজাফর বললেন সৌমিত্র খাঁ। বিধানসভা ভোটের মুখে বিজেপি ছেড়ে; তৃণমূলে যোগ দিয়েছিলেন সৌমিত্রের স্ত্রী সুজাতা। তারপর থেকে সৌমিত্রও তৃণমূলে যেতে পারেন; বলে জল্পনা চলছিল। এরই মাঝে সৌমিত্রর তৈরি যুব মোর্চার; সমস্ত জেলা কমিটি ভেঙে দেন দিলীপ ঘোষ। কিন্তু শেষমেশ বিজেপিতেই আছেন বলে; জানিয়ে দেন সৌমিত্র। আর এদিন মুকুল রায়কে মীরজাফর বলে তিনি বুঝিয়ে দিলেন; আপাতত শুভেন্দু অধিকারীর রাস্তায় হাঁটবেন সৌমিত্র খাঁ।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন