হিন্দু মেয়েদের নিয়ে কদর্য পোস্ট, গ্রেফতার করে উত্তমমধ্যম দিল পুলিশ

8914
হিন্দু মেয়েদের নিয়ে কদর্য পোস্ট, গ্রেফতার করে থানায় উত্তমমধ্যম
হিন্দু মেয়েদের নিয়ে কদর্য পোস্ট, গ্রেফতার করে থানায় উত্তমমধ্যম

হিন্দু মেয়েদের নিয়ে কদর্য পোস্ট; সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হবার পরেই; অভিযুক্তকে গ্রেফতার করল পুলিশ। গ্রেফতার করে থানায়; উত্তমমধ্যম দিল মুর্শিদাবাদ জেলা পুলিশ। “মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মুসলিমদের পাশে আছে; তাই মুসলিমরা হিন্দু মেয়েদের ধর্ষণ করুক”; এমনই ভাষায় ফেসবুকে অশ্লীল পোস্ট করে বিতর্ক সৃষ্টি করে; মুর্শিদাবাদ জেলার এক যুবক। ফেসবুক থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী; ওই যুবক মুর্শিদাবাদের উলাডাঙ্গার বাসিন্দা। নাম; সাকিরুল ইসলাম; বাবার নাম আবু তাহের। তার পোস্ট ভাইরাল হয়। The News বাংলা র তরফ থেকে; এই ফেসবুক প্রোফাইল নিয়ে পুলিশের দৃষ্টি আকর্ষণ করা হয়।

মমতা পাশে আছে দাবি করে হিন্দু মেয়েদের নিয়ে কদর্য পোস্ট

হিন্দু মেয়েদের নিয়ে কদর্য পোস্ট, গ্রেফতার করে থানায় উত্তমমধ্যম
হিন্দু মেয়েদের নিয়ে কদর্য পোস্ট, গ্রেফতার করে থানায় উত্তমমধ্যম

সোশ্যাল মিডিয়ায় বিতর্ক তৈরি করে; অশ্লীল ভাষায় সাকিরুল লেখে; “মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আমাদের সাপোর্ট করেছে; ভয় কিসের”? এরপরেই সে হিন্দু মেয়েদের উপরে অত্যাচার; ধর্ষণের ডাক দেয়। বাংলায় করোনার প্রকোপ; এবং আমফানের দাপটের সঙ্গে লড়ছে গোটা বাংলার মানুষ; কিন্তু তখনও কিছু কট্টরপন্থীরা এহেন মন্তব্য করে; রাজ্যের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট করার জন্য অবিরাম কাজ করে চলেছে।

অভিনেত্রী সাংসদকে দেখতে ভিড়, বাড়াল করোনা আশঙ্কা

বাংলায় মুসলিম তোষণের অভিযোগ; বিজেপির তরফ থেকে বারবার মমতা ব্যানার্জীর বিরুদ্ধে করা হয়েছে। আর সেই তোষণ নীতিকে উস্কে দিয়েই; সোশ্যাল মিডিয়ায় ওই যুবকের পোস্ট নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। গোটা সোশ্যাল মিডিয়ায় এখন সাকিরুল ইসলাম নামের ওই যুবকের; কঠোর শাস্তির দাবি উঠেছে। পোস্ট ভাইরাল হবার পরেই; ওই যুবককে গ্রেফতার করেছে; মুর্শিদাবাদ জেলা পুলিশ। জানা গেছে; ওই যুবককে উত্তম মধ্যম দিয়েছে পুলিশ।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন