বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করে, ভোটের আগে মমতাকে ‘শ’হিদ’ হবার সুযোগ দেবেন না মোদী শাহ

376
বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করে, ভোটের আগে মমতাকে 'শ'হিদ' হবার সুযোগ দেবেন না মোদী শাহ
বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করে, ভোটের আগে মমতাকে 'শ'হিদ' হবার সুযোগ দেবেন না মোদী শাহ

মানব গুহ, কলকাতাঃ কখনও দিলীপ ঘোষ, কখনও বাবুল সুপ্রিয়, কখনও মুকুল রায়; প্রত্যেকেই বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করার কথা বলেছেন। বাদ যাননি রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়ও। তবে দিল্লির রাজনৈতিক মহল ও কেন্দ্রীয় মন্ত্রীদের সূত্রে যা খবর; পুরোটাই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকারকে চাপে রাখার কৌশল। ভোটের আগে, বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করে; মুখ্যমন্ত্রী মমতাকে ‘শ’হিদ’ হবার সুযোগ দেবেন না; নরেন্দ্র মোদী ও অমিত শাহ। শুক্রবারও, বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি নিয়ে; মুখ খুলেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়। কিন্তু তিনিও ভালো করেই জানেন; ভোটের আগে কোনরকমেই এ রাজ্যে রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করবে না; মোদী সরকার।

রাষ্ট্রপতি শাসন। বিধানসভা নির্বাচনের আগে; এটাই কি বাংলার ভবিষ্যৎ? শুক্রবার বাবুল সুপ্রিয়, মমতা সরকারের বিরুদ্ধে অত্যাচারের অভিযোগ তুলে বললেন; “সংবিধানে দাওয়াইয়ের ব্যবস্থা আছে। রাজ্য সরকার যেভাবে বাংলার মানুষের উপর স’ন্ত্রাস নামিয়ে আনছে; তাতে কেন্দ্রের পক্ষে অসম্ভব নয় সেই পথে হাঁটা”। বাবুলের রাষ্ট্রপতি শাসনের মন্তব্যের বিরুদ্ধে নেমে; তো’প দেগেছেন তৃণমূল নেতা কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায় ও সৌগত রায়। চলছে রাজনৈতিক তরজা।

আরও পড়ুনঃ “বাংলায় ভোটের আগেই দ্রুত নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন বলবৎ”

তবে, বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন নিয়ে; বিজেপি ও তৃণমূল নেতাদের এই বিতর্কে; হাসছে রাজধানীর রাজনৈতিক মহল। সাধারণভাবে বেশ কয়েকটি কারণে; কোনও রাজ্যে রাষ্ট্রপতি শাসন জারি হতে পারে। কোনও রাজ্যে নির্বাচিত সরকার; সংখ্যাগরিষ্ঠতা প্রমাণে ব্যর্থ হলে; বা বিধানসভার নেতা নির্বাচন করতে না পারলে; বা ভোটগ্রহণ পিছিয়ে যাওয়ার মতো সাংবিধানিক সঙ্কট তৈরি হলে; ভারতীয় সংবিধানের ৩৫৬ ধারা অনুযায়ী জারি হতে পারে রাষ্ট্রপতি শাসন।

কোনও রাজ্যে আইন-শৃঙ্খলার অবনতি হলেও; এই ধারা প্রয়োগ করা হতে পারে। কিন্তু এর কোন পরিস্থিতিই; এখন পশ্চিমবঙ্গে হয়নি। তাই বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি; আকাশকুসুম কল্পনা মাত্র।

দিল্লির রাজনৈতিক মহল ও বিশেষ করে গেরুয়া শিবিরের কেন্দ্রীয় নেতারা বলছেন; “বাংলায় বিধানসভা ভোটের আগে; কোনরকমেই রাষ্ট্রপতি শাসন জারি হবে না”। কারণ সেক্ষেত্রে ক্ষমতাসীন তৃণমূল সরকার নিজেদের ‘শ’হিদ’ ঘোষণা করে; ভোটে নামতে পারবে। তখন মানুষের আবেগ কিন্তু তৃণমূলের সঙ্গেই থাকবে। ফলে রাষ্ট্রপতি শাসন জারি নিয়ে যা কিছুই হচ্ছে; সবটাই মমতা সরকারকে চাপে রাখার একটা কৌশল মাত্র।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন