খুলতে চলেছে স্কুল কলেজ, কি কি নিয়ম মানতে হবে

4337
খুলতে চলেছে স্কুল কলেজ, কি কি নিয়ম মানতে হবে
খুলতে চলেছে স্কুল কলেজ, কি কি নিয়ম মানতে হবে

দিনের পর দিন বন্ধ স্কুল কলেজ, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। কিন্তু আর কতদিন? দেশে চতুর্থ দফার লকডাউনে; বেশ কিছু নিয়ম শিথিল করতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার। এবার ধীরে ধীরে খুলে যাচ্ছে দোকানপাট, বাজার। এবার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানও; খুলতে চলেছে দেশ জুড়ে। কিন্তু স্কুল কলেজ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলতে; কি কি নিয়ম মানতে হবে? সেগুলি নিয়েই চলছে আলোচনা। মনে করা করা হচ্ছে; হয়ত জুনের মাঝামাঝি থেকেই আংশিক খুলে যাবে; স্কুল কলেজ, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।

খুলতে চলেছে স্কুল কলেজ, কি কি নিয়ম মানতে হবে

লকডাউনে থমকে গিয়েছে; স্কুল কলেজের পঠনপাঠন। বেশিরভাগ স্কুলেই অনলাইনে ক্লাস শুরু হয়েছে বটে; তবে এই পদ্ধতিতে বাড়িতে যে স্কুলের আবহ তৈরি হচ্ছে না; তাতে দ্বিমত নেই পড়ুয়া, অভিভাবক, শিক্ষকদেরও। লকডাউন পরবর্তী পরিস্থিতিতে; স্কুল তো খুলতেই হবে। কিন্তু কীভাবে কতজন পড়ুয়া নিয়ে; হবে স্কুলে ক্লাস? নাকি আগের মতোই থাকবে সব কিছু? এই নিয়ে, কেন্দ্রীয় মানবসম্পদ উন্নয়নমন্ত্রী রমেশ পোখরিয়াল জানিয়েছেন; বেশ কিছু নিয়ম মেনেই শুরু হবে স্কুল কলেজ।

ব্যাঙ্ক প্রতারক নীরব মোদীকে বাঁচাতে, এগিয়ে এলেন কংগ্রেস নেতা

কেন্দ্রীয় মানবসম্পদ উন্নয়নমন্ত্রী; রমেশ পোখরিয়াল ঠিক কি জানালেনঃ
১। স্কুলে একদিনে একসঙ্গে; ৩০ শতাংশ পড়ুয়াদের নিয়ে ক্লাস হতে পারে।
২। এক এক ক্লাসে ৫০ শতাংশ; ছাত্র ছাত্রী নিয়ে ক্লাস হতে পারে। তিনদিন ৫০ শতাংশ; আর বাকি তিনদিন ৫০ শতাংশ ছাত্র ছাত্রী; স্কুলে ক্লাস করবে।
৩। প্রত্যেক-কে মুখে মাস্ক পড়তেই হবে।

বৃহস্পতিবার মন্ত্রী বলেন; “এনসিইআরটি-কে গাইডলাইন তৈরি করতে বলা হয়েছে। গাইডলাইন প্রস্তুতি ইতিমধ্যেই; চূড়ান্ত জায়গায় পৌঁছেছে। একসঙ্গে যদি ৩০ শতাংশ করে ছাত্র নিয়ে; ক্লাস করানো হয়; তাহলে আমরা দেখতে চাই কী ভাবে তা কাজ করছে”। মনে করা হচ্ছে; জুনের মাঝামাঝি থেকেই অন্তত নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণীর ক্লাস; শুরু করে দেওয়া হবে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে।

খুলতে চলেছে স্কুল কলেজ, কি কি নিয়ম মানতে হবে

জানা গেছে, লকডাউন ওঠার পর কীভাবে স্কুলগুলি চালু করা হবে; তা নিয়ে ইতিমধ্যেই কেন্দ্রীয় মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রকের পরামর্শে; ন্যাশনাল কাউন্সিল ফর এডুকেশন রিসার্চ অ্যান্ড ট্রেনিংয়ের আধিকারিকরা; একটি গাইডলাইন তৈরি করছে। জানা গিয়েছে, একাধিক সুপারিশ দেওয়া হতে পারে সেখানে; যার মধ্যে রয়েছে স্কুল চালু হলেও; আপাতত কোনও প্রার্থনাসভা করা যাবে না। স্কুলে কোনও সেমিনার বা একসঙ্গে জমায়েত হতে পারে; এমন অনুষ্ঠান করা যাবে না।

‘এক দেশ এক রেশন কার্ড’ এর পরে কি ‘এক দেশ এক আইন’

এ রাজ্যে ১০ জুন পর্যন্ত; স্কুল কলেজ বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে সরকার। এই পরিস্থিতিতে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির; সিলেবাস শেষ করা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। সেক্ষেত্রে কবে থেকে কীভাবে স্কুল চালু করা সম্ভব; তা নিয়ে ভাবনা চিন্তা করছে সরকার। ইতিমধ্যেই বেসরকারি স্কুল কর্তৃপক্ষের সঙ্গেও কথা বলেছে; রাজ্যের শিক্ষা দফতর। এক এক ক্লাসে ৫০ শতাংশ পড়ুয়া নিয়ে; তিনদিন করে স্কুল করা যায় কিনা; তা নিয়েও হয়েছে আলোচনা।

বাংলায় অন্তত নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণীর ক্লাস; শুরু করে দেওয়া যায় কিনা সেই নিয়েও আলোচনা হয়েছে। তবে, স্কুল কলেজ খোলা নিয়ে; কেন্দ্রীয় সরকার কি নির্দেশ দেয়; সেই দিকেই এখন তাকিয়ে রাজ্য সরকার। তবে, জুনের মাঝামাঝি থেকেই বা জুলাইয়ের প্রথম থেকেই যে স্কুল কলেজ খুলতে চলেছে; এমন ইঙ্গিতই পাওয়া যাচ্ছে; কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারের তরফ থেকে।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন