শুধু ইন্টারভিউ হবে নিয়োগ বন্ধ, আবার আটকে গেল উচ্চ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ

401
শুধু ইন্টারভিউ হবে নিয়োগ বন্ধ, আবার আটকে গেল উচ্চ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ
শুধু ইন্টারভিউ হবে নিয়োগ বন্ধ, আবার আটকে গেল উচ্চ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ

শুধু ইন্টারভিউ হবে নিয়োগ বন্ধ; আবার আটকে গেল উচ্চ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ। আবারও মামলার ফাঁসে; উচ্চ প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ। মঙ্গলবার ফের হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ; নিয়োগ প্রক্রিয়ায় জারি করল স্থগিতাদেশ। তবে এতে বাধাপ্রাপ্ত হবে না; ইন্টারভিউ প্রক্রিয়া। পরীক্ষার্থীদের ইন্টারভিউ প্রক্রিয়াতে; স্থগিতাদেশ না দিলেও নিয়োগে স্থগিতাদেশ জারি করেছে; কলকাতা হাইকোর্ট। অর্থাৎ ইন্টারভিউ চললেও, এখনই করা যাবে না; শিক্ষক নিয়োগ। ফের উচ্চ প্রাথমিক শিক্ষক; নিয়োগে জট। শিক্ষক নিয়োগে ইন্টারভিউ চললেও, উচ্চ আদালতের অনুমতি ছাড়া; এখনই কাউকে নির্বাচন করে নিয়োগপত্র দেওয়া যাবে না।

মঙ্গলবার এই উচ্চ প্রাথমিক সংক্রান্ত মামলায়; এমনই নির্দেশ দিল কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি সুব্রত তালুকদার ও বিচারপতি অনিরুদ্ধ রায়ের বেঞ্চ। ইন্টারভিউয়ে নির্বাচিত সদস্যদের; বিস্তারিত ডাটাবেস তৈরি করতে হবে। পাশাপাশি, যাঁরা ইন্টারভিউয়ের জন্য নির্বাচিত হননি; তাঁদেরও লিখিত পরীক্ষার ব্রেক-আপ নম্বর এবং শুনানির বিস্তারিত তথ্যভাণ্ডার তৈরির নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট। এরপর সেই দুটি তথ্যভাণ্ডার; হাইকোর্টে জমা দিতে হবে। তা ভালভাবে খতিয়ে দেখে; তবেই শিক্ষক নিয়োগের অনুমতি দেবেন বিচারপতিরা।

আরও পড়ুনঃ কলকাতাকে লন্ডন বানানোর রসিকতা ছাড়ুন, ক্যালকাটা-লন্ডন বাস পরিষেবা ছিল বিশ্বের বিস্ময়

আইনি জটিলতার মাঝেই, আদালতের নির্দেশ মেনেই; উচ্চ প্রাথমিকে নিয়োগের জন্য ইন্টারভিউ পর্ব শুরু করেছে রাজ্য সরকার। ১৯ জুলাই থেকে; শুরু হয়েছে ইন্টারভিউ। চলবে আগামী; ৪ অগাস্ট পর্যন্ত। ইন্টারভিউয়ে নির্বাচিত সদস্যদের; বিস্তারিত database তৈরি করতে নির্দেশ হাইকোর্টের। বিচারপতি সুব্রত তালুকদার ও বিচারপতি অনিরুদ্ধ রায়ের ডিভিশন বেঞ্চের নির্দেশ; যারা ইন্টারভিউয়ে ডাক পাননি বলে অভিযোগ করেছেন; তাদেরও নম্বরের ব্রেক আপ জমা দেওয়ার নির্দেশ। দুটি বিষয়ের তথ্য খতিয়ে দেখেই; পরবর্তী নির্দেশ দেবে আদালত।

মোট ১৪,৩৩৯ জন শিক্ষক নিয়োগের জন্য; ১৫ হাজারের বেশি প্রার্থীর নাম রয়েছে ইন্টারভিউ তালিকায়। বিচারপতি সুব্রত তালুকদার ও বিচারপতি অনিরুদ্ধ রায়ের বেঞ্চ জানিয়ে দিল; ইন্টারভিউ-তে বাধা নেই; প্যানেলও তৈরি করা যাবে। কিন্তু নির্বাচিত শিক্ষকদের হাতে নিয়োগপত্র; তুলে দেওয়া যাবে না। ৮ জুলাই উচ্চ প্রাথমিকের যে ইন্টারভিউ তালিকা, প্রকাশিত হয়েছে; তাতে অস্বচ্ছতার অভিযোগে হাইকোর্টে মামলা হয়েছে। যাঁদের নাম নেই সেই তালিকায়; তাঁদের একাংশ মামলা দায়ের করেছেন। অভিযোগ, তাঁদের যোগ্যতা থাকা সত্বেও; ইন্টারভিউ তালিকায় নাম ওঠেনি।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন