সন্ত্রাসবাদে মদত দেওয়া পাকিস্তানেই এবার ভয়ঙ্কর জঙ্গি হামলা

551
সন্ত্রাসবাদে মদত দেওয়া পাকিস্তানেই এবার ভয়ঙ্কর জঙ্গি হামলা/The News বাংলা
সন্ত্রাসবাদে মদত দেওয়া পাকিস্তানেই এবার ভয়ঙ্কর জঙ্গি হামলা/The News বাংলা

রীতিমতো পরিকল্পনা করে পাকিস্তানে জোড়া হামলা চালাল পাকিস্তানের জঙ্গি গোষ্ঠী তেহরিক-এ-তালিবান পাকিস্তান(টিটিপি)। রবিবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে পাকিস্তানের উত্তর-পশ্চিমের খাইবার পাখতুনখোয়ায়। খাইবার পাখতুনখোয়ার জেলা পুলিশ প্রধান সালিম রিয়াজ জানিয়েছেন; আত্মঘাতী জঙ্গিরা; প্রায় সাত থেকে আট কিলোগ্রাম বিস্ফোরক ব্যবহার করেছিল।

রবিবার রাতে; পাকিস্তানে জোড়া জঙ্গি হামলায় মৃত্যু হল অন্তত ৯ জনের; গুরুতর আহত হয়েছেন কমপক্ষে ৩০ জন। প্রথম হামলাটি হয়; খাইবার পাখতুনখোয়ার; ইসমাইল খানের একটি চেক পোস্টে। এই চেক পোষ্টতিতে বন্দুক নিয়ে হামলা চালায় জঙ্গিরা। তারপর একটি আত্মঘাতী বিস্ফোরণ ঘটানো হয়; জেলা হাসপাতালে।

আরও পড়ুনঃ আমেরিকায় অপমানিত ইমরান খান, পাত্তা পেলেন না ট্রাম্পের কাছে

ঘটনার পর; হামলার দায় স্বীকার করেছে পাক জঙ্গি সংগঠন তেহরিক-এ-তালিবান পাকিস্তান; বলে জানিয়েছেন জেলা পুলিশ প্রধান সালিম রিয়াজ। তিনি আরও জানান; দুটো মোটর সাইকেল করে; চারজন বন্দুকবাজ জঙ্গি একটি চেক পোস্টে হামলা চালায়।

ঘটনাস্থলেই দুই পুলিশকর্মী মারা যান। পরে; ওই দুই পুলিশকর্মীর দেহ জেলা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার হলে; অ্যাম্বুল্যান্স ঘিরে ভিড় করেন লোকজন। সেই সময়
হাসপাতাল চত্বরে উপস্থিত; বোরখা পরিহিত এক মহিলা আত্মঘাতী বিস্ফোরণ ঘটায়।

আরও পড়ুনঃ আমেরিকায় আক্রান্ত ভারতীয় পুরোহিত

ওই বিস্ফোরণের ফলে; হাসপাতাল চত্বরে চার পুলিশকর্মীসহ সাত জনের মৃত্যু হয়। জানা গেছে; আহতদের মধ্যে অনেকের অবস্থাই আশঙ্কাজনক। নিহতের সংখ্যাও আরও বাড়তে পারে বলে জানা গেছে। পুলিশের তরফ থেকে জানানো হয়েছে; আত্মঘাতী ওই মহিলা জঙ্গি আগে থেকে হাসপাতালে বসেছিল।

বেশ কিছুদিন ধরে রীতিমতো পরিকল্পনা করেই টিটিপি হামলা চালিয়েছে বলে মনে কড়া হচ্ছে। এই ঘটনায়; প্রশ্নের মুখে পাকিস্তানের হাসপাতালের নিরাপত্তা ব্যবস্থা। জেলা পুলিশ প্রধান সালিম রিয়াজ জানিয়েছেন; হাসপাতালের প্রবেশের সময় প্রত্যেক ব্যক্তিকে তল্লাশি করা হয়।

কিন্তু পাকিস্তানের ওই এলাকার প্রথা অনুযায়ী; মহিলাদের তল্লাশি করা হয় না; তাদের তল্লাশি না করেই; ছেড়ে দেওয়া হয়ে থাকে। কোনও মহিলাকে আত্মঘাতী বিস্ফোরক জঙ্গি হিসেবে ব্যবহার করা হবে; তা প্রশাসন কোন ভাবেই অনুমান করতে পারেন নি। বলা হচ্ছে; ওই এলাকায় এই প্রথম কোনও মহিলা জঙ্গি আত্মঘাতী হামলা চালাল।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন