৪৫ টাকার পেট্রোল ১০০ টাকায়, কিভাবে মানুষের পকেট কাটছে মমতা ও মোদী সরকার

705
৪৫ টাকার পেট্রোল ১০০ টাকায়, কিভাবে মানুষের পকেট কাটছে মমতা ও মোদী সরকার
৪৫ টাকার পেট্রোল ১০০ টাকায়, কিভাবে মানুষের পকেট কাটছে মমতা ও মোদী সরকার

মানব গুহ, কলকাতাঃ ৪৫ টাকার পেট্রোল ১০০ টাকায়, কিভাবে মানুষের পকেট কাটছে; মমতা ও মোদী সরকার? অবাক হচ্ছেন! হ্যাঁ, পেট্রোলের আসল দাম হওয়ার কথা; ৪৪.৬৮ টাকা। অর্থাৎ ৪৪ টাকা ৬৮ পয়সা। কিন্তু সেই তেল আমরা বুধবার কলকাতায় কিনছি; ১০০ টাকা ২৩ পয়সা দিয়ে! কিন্তু কেন? কেন ৪৫ টাকার পেট্রোল; ১০০ টাকায় কিনছি আমরা? আসলে মানুষের এই পকেট কাটার পিছনে, যেমন আছে কেন্দ্র সরকার; তেমনই আছে রাজ্য সরকার। তেলের দাম আকাশছোঁয়া হবার পিছনে; মানুষের অসহায় অবস্থার পিছনে; মোদী সরকারের পাশাপাশি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকারও কম দায়ী নয়।

আরও পড়ুনঃ ১৮ জন সাংসদ দিয়েও, মোদী মন্ত্রীসভায় এবারেও পূর্ণমন্ত্রী জুটল না বাংলার

৪৫ টাকার পেট্রোল ১০০ টাকায়; মানুষের পকেট কাটছে মোদী ও মমতা সরকার। কলকাতায় বুধবার পেট্রোলের দাম; লিটার প্রতি ১০০.২৩ টাকা। আসলে পেট্রোলের দাম; মাত্র ৪৪.৬৮ টাকা। অর্থাৎ ৪৫ টাকারও কম। দাম ৪৫ হলে; পকেট থেকে ১০০ লাগছে কেন? সৌজন্যে মোদী ও মমতা সরকার। ৪৫ টাকার পেট্রোলে; কেন্দ্রীয় ট্যাক্স (এক্সাইজ ডিউটি) ৩২.৯০ টাকা। ও রাজ্যের কর; বা সেলস ট্যাক্স ১৯.৩৫ টাকা। অর্থাৎ পেট্রোলের যা দাম, তার ১০০ গুণেরও বেশি; দুই সরকারের ট্যাক্স।

৪৫ টাকার পেট্রোল ১০০ টাকায়, কিভাবে পকেট কাটছে মোদী ও মমতা সরকার
৪৫ টাকার পেট্রোল ১০০ টাকায়, কিভাবে মানুষের পকেট কাটছে মমতা ও মোদী সরকার

পেট্রোলের বেস প্রাইস ৪৪.৬৮ টাকা প্রতি লিটার; কিন্তু কেন্দ্র ও রাজ্যের কর ৫২.২৫ টাকা। ফলে, ৪৫ টাকার পেট্রোল; মানুষকে কিনতে হচ্ছে ১০০ টাকায়। আর তাতে হেলদোল নেই; রাজ্য বা কেন্দ্রের। পেট্রোল হোক বা ডিজেল; তেলের উপরে যেমন খুশি শুল্ক বাড়ায় কেন্দ্র। আর রাজ্যগুলিও নিজেদের প্রয়োজন মতো; তেলের উপর ভ্যাট বসায়। হ্যাঁ, মানুষের কথা না ভেবে; ইচ্ছেমত ট্যাক্স আদায় করে কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার।

দীর্ঘদিন ধরেই পেট্রোল-ডিজেলের উপরেও; অন্যান্য জিনিসের মত জিএসটি বসানোর দাবি উঠেছে। সেক্ষেত্রে গোটা দেশেই, পেট্রোল-ডিজেলের উপরে; অভিন্ন হারে কর চাপবে। কিন্তু সেই দাবিতে সাড়া দেয়নি; কেন্দ্রীয় সরকার। এই বিষয়ে রাজ্যগুলিও চুপ। কারণ একবার পেট্রোল-ডিজেল, জিএসটি-র আওতায় এলে; তেল বিক্রি থেকে কেন্দ্র-রাজ্য দু-পক্ষেরই আয় অনেকটাই কমে যাবে। যার ফল ভোগ করছে; সাধারণ মানুষ।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন