বাংলা নেই, প্রজাতন্ত্র দিবসে শ্যামাপ্রসাদ মুখার্জীর ট্যাবলোকে জায়গা দিলেন মোদী

2202
বাংলা নেই, প্রজাতন্ত্র দিবসে শ্যামাপ্রসাদ মুখার্জীর ট্যাবলোকে জায়গা দিলেন মোদী/The News বাংলা
বাংলা নেই, প্রজাতন্ত্র দিবসে শ্যামাপ্রসাদ মুখার্জীর ট্যাবলোকে জায়গা দিলেন মোদী/The News বাংলা

বাংলা নেই; প্রজাতন্ত্র দিবসে শ্যামাপ্রসাদ মুখার্জী পোর্ট ট্রাস্টের ট্যাবলোকে জায়গা দিলেন মোদী। মমতার পাঠানো প্রস্তাব বাতিল করে দিয়ে; এবার প্রজাতন্ত্র দিসরে মহড়ায় জায়গা করে নিল; কলকাতার পোর্ট ট্রাস্টের ট্যাবলো। কলকাতা পোর্ট ট্রাস্টের নাম বদলে রাখা হয়েছে শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায় পোর্ট ট্রাস্ট। সেই বন্দরকেই কেন্দ্র এবার; উপস্থান করতে চলেছে গোটা দেশের কাছে।

প্রজাতন্ত্র দিবসের দিন এই ট্যাবলো নজর কাড়বে; রাজধানীতে। হাওড়া ব্রিজ, শ্রমিক, এবং পোর্টের ইতিহাস ট্যাবলোয় ফুটিয়ে তোলা হয়েছে; কেন্দ্রের তরফে। বাংলার পাঠানো ট্যাবলো প্রস্তাবকে মানেনি কেন্দ্র।

আরও পড়ুন শাহরুখের কাছে মন্নতে ঘর ভাড়া চাইলেন এক ভক্ত

পর পর দুটি বৈঠকে বাংলার ট্যাবলোকে; সম্মতি দেওয়া হয়নি। বাংলা ছাড়াও মহারাষ্ট্র, কেরল, বিহারের মতো অবিজেপি শাসিত রাজ্যগুলিকেও ট্যাবলো প্রদর্শন থেকে বঞ্চিত করা হয়েছে। তবে পাঞ্জাব, ছত্তিশগড়ের মতো রাজ্যগুলি ট্যাবলো প্রদর্শনে জায়গা করে নিয়েছে।

কেন্দ্রীয় জাহাজ মন্ত্রক কলকাতা পোর্ট ট্রাস্টকে ট্যাবলো ভাবনায় ফুটিয়ে তুলেছে। কলকাতা বন্দরের ১৫০ তম জন্মদিনে খোদ কলকাতা এসে তা সাড়ম্বরের সঙ্গে উজ্জাপন করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায় পোর্ট ট্রাস্টের সেই ট্যাবলোই স্থান পাচ্ছে প্রজাতন্ত্র দিবসের কুচকাওয়াজে।

গত বছরও লালকেল্লার কুচকাওয়াজে দেখা গিয়েছিল; বাংলার ট্যাবলো। তবে এবার আর দেখা মিলবে না; বাংলার ট্যাবলোর। রাজ্য সরকারের সঙ্গে কেন্দ্রীয় সরকারের সংঘাত অব্যাহত। এবার প্রজাতন্ত্র দিবসের কুচকাওয়াজ থেকে; পশ্চিমবঙ্গের ট্যাবলোকে বাদ দিল কেন্দ্রীয় সরকার। ২০২০ সালের প্রজাতন্ত্র দিবসের কুচকাওয়াজস হবে ২৬ জানুয়ারি। লালকেল্লার সামনে; সেই প্যারেডেই এবার পশ্চিমবঙ্গের ট্যাবলোর কোনও জায়গাই হল না।

রাজ্যের এই ট্যাবলো প্রস্তাব খারিজ করে দিয়েছে; প্রতিরক্ষামন্ত্রকের কমিটি। কোন কোন রাজ্যের ট্যাবলো থাকবে কুচকাওয়াজের সময় তারাই; বাছাই করে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই ট্যাবলোয়; বিভিন্ন প্রকল্পের কোলাজ শোভা পেয়েছিল। ছিল লোকশিল্পেও ছোঁয়াও।

বিভিন্ন রাজ্য ট্যাবলোগুলিকে পাঠানোর জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের কাছে আবেদন করে। প্রতিরক্ষামন্ত্রকের ওই কমিটির মধ্যে থেকে মোট ৫৬টি প্রস্তাবের মধ্যে ২২টি প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে। বাংলা সহ বাকি প্রস্তাবগুলি খারিজ করে দেওয়া হয়। প্রতিবছরই এই ট্যাবলোয় বিভিন্ন রাজ্য নিজেদের ট্যাবলোয় শিল্প-সংস্কৃতির প্রদর্শন করে থাকে।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন