‘সিঙ্গেল মাদার’ লড়াই শেষ, বার্থ সার্টিফিকেটে বাচ্চার বাবার নাম জানালেন নুসরত

4095
'সিঙ্গেল মাদার' লড়াই শেষ, বার্থ সার্টিফিকেটে বাচ্চার বাবার নাম জানালেন নুসরত
'সিঙ্গেল মাদার' লড়াই শেষ, বার্থ সার্টিফিকেটে বাচ্চার বাবার নাম জানালেন নুসরত

‘সিঙ্গেল মাদার’ লড়াই শেষ; বার্থ সার্টিফিকেটে বাচ্চার বাবার নাম জানালেন নুসরত। প্রকাশ্য়ে নুসরতের সন্তানের পিতৃপরিচয়; কলকাতা পুরসভার বার্থ সার্টিফিকেটে, নুসরত পুত্র ঈশানের নামের পাশে; পদবি লেখা দাশগুপ্ত। বাবার নামের জায়গায় লেখা; দেবাশিস দাশগুপ্ত! পুরসভার সাইটে বার্থ সার্টিফিকেটে, নুসরত পুত্র ঈশানের বাবার নামের জায়গায় লেখা; দেবাশিস দাশগুপ্তর নামটি। কে এই দেবাশিস দাশগুপ্ত? কে আসলে নুসরতের বাচ্চার বাবা?

আসলে ভোটের হলফনামায়, নিজের নাম; দেবাশিস দাশগুপ্ত বলে উল্লেখ করেছিলেন অভিনেতা যশ। বার্থ সার্টিফিকেট অনুযায়ী, নুসরতের সন্তানের নামকরণ করা হয়েছে; ঈশান জে দাশগুপ্ত। অর্থাৎ যশই; নুসরতের সন্তানের বাবা। সিঙ্গেল মাদার আদৌ কোনদিন ছিলেন না; তৃণমূল সাংসদ ও ফিল্ম অভিনেত্রী নুসরত জাহান।

গত ১৩ সেপ্টেম্বর নতুন ছবি ‘চিনেবাদাম’-এর; শ্যুটিং শুরু করেছেন যশ দাশগুপ্ত। সেখানেই সাংবাদিক-দের মুখোমুখি হয়ে যশ বলেছিলেন; “আমি ঈশানকে ঈশান নামেই ডাকছি; ওই নামটা আমি আর নুসরত একসঙ্গেই ঠিক করেছি। তবে হ্যাঁ, ওর এখনও উত্তর দেওয়ার বয়স হয়নি; খুব ছোট্ট তো। আর ওর ডাকনাম; দেওয়া হয়েছে অংশ”।

আরও পড়ুনঃ ‘তোদের দুর্গার অবস্থা দেখ’, বিজেপি মহিলা কর্মীর ফেসবুক পোস্টে ক্ষুব্ধ তৃণমূল যাচ্ছে পুলিশের কাছে

অবশেষে সব জল্পনার ইতি; বুধবার রাতে কলকাতা পুরসভার অনলাইন ফর্মে; ছেলের বাবার নাম নথিভুক্ত করালেন নুসরত। যেখানে স্পষ্টই লেখা রয়েছে; ছেলের নাম ঈশান জে দাশগুপ্ত ৷ আর বাবার নাম; দেবাশিস দাশগুপ্ত ওরফে যশ! নুসরত জাহানের সন্তানের বাবা কে? অভিনেত্রী-সাংসদ অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার পর থেকেই; এই নিয়ে জল্পনা চলছিল। অবশেষে সিঙ্গেল মাদার ইস্যুতে; নিজেই জল ঢাললেন নুসরত।

সোশ্যাল মিডিয়াতেও নেটিজেনরা নানা সময়ে, নানাভাবে; নুসরতকে এই প্রশ্নেই জর্জরিত করছিল। কয়েকদিন আগে নুসরত জানিয়ে ছিলেন; তাঁর ছেলে ঈশানের বাবা কে? তবে স্পষ্ট নয়। বরং ইঙ্গিতেই সন্তানের বাবার কথা; বলেছিলেন নুসরত! তবে এবার আর সন্তানের পিতৃ পরিচয়; গোপন রাখতে পারলেন না অভিনেত্রী সাংসদ। তাহলে এত নাটক করার দরকার কি ছিল? প্রশ্ন তুলেছেন নেটিজেনরা। সিঙ্গেল মাদার-দের এত অপমান করার; চেষ্টা করে কি লাভ হল? এ প্রশ্নও তুলেছেন অনেকেই।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন