‘বন্ধু আজ শত্রু’, মুকুলের বিরুদ্ধে ৬৪ পাতার চিঠি শুভেন্দুর

2133
'বন্ধু আজ শত্রু', মুকুলের বিরুদ্ধে ৬৪ পাতার চিঠি শুভেন্দুর
'বন্ধু আজ শত্রু', মুকুলের বিরুদ্ধে ৬৪ পাতার চিঠি শুভেন্দুর

‘বন্ধু আজ শত্রু’, মুকুলের বিরুদ্ধে; ৬৪ পাতার চিঠি শুভেন্দুর। আনুষ্ঠানিকভাবে শুক্রবার মুকুল রায়ের বিধায়ক পদ খারিজের আবেদন জানালেন; বিধানসভার বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। বিধানসভার স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্দেশ্যে; বিরোধী দলনেতার প্যাডেই লেখা হল চিঠি। এই চিঠি জমা পড়েছে; বিধানসভার সচিবালয়ে। চিঠিতে অবিলম্বে দলত্যাগ বিরোধী আইনে; মুকুল রায়ের বিরুদ্ধে পদক্ষেপের আবেদন জানানো হয়েছে। যদিও বিধানসভার অধ্যক্ষ বলেছেন; এখনও চিঠি হাতে পাইনি।

‘দলত্যাগ বিরোধী আইন; আমি কার্যকর করে দেখাব’। মুকুল রায়ের দলবদলের পরই; এমনই হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। এবার সেই আবেদন জানিয়েই, বিধানসভার অধ্যক্ষকে; এই চিঠি দিয়েছেন তিনি। তবে এই ভাবে ৬৪ পাতার চিঠি দেওয়ার বিষয়টা; অনেকটাই নজিরবিহীন বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল। ওই চিঠিতে মুকুলের বিধায়ক পদ খারিজের; আবেদনের পক্ষে বেশ কিছু যুক্তি দেওয়া হয়েছে। দ্রুত মুকুলের বিধায়ক পদ; খারিজের আবেদন জানানো হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ হাইকোর্টে নন্দীগ্রাম লড়াই, বিচারপতির বিরুদ্ধেই বিজেপি-র সক্রিয় সদস্য থাকার অভিযোগ

কয়েকদিন আগেই বিজেপি ছেড়ে; তৃণমূলে প্রত্যাবর্তন ঘটেছে মুকুল রায়ের। এবারের বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি প্রার্থী হিসেবে; কৃষ্ণনগর উত্তর থেকে জিতেছেন মুকুল। তাঁর তৃণমূলে যোগদানের পরই; শুভেন্দু অধিকারী বলেছিলেন, কীভাবে দলত্যাগ বিরোধী আইন রূপায়ন করতে হয়; তা তাঁর জানা আছে। মুকুল রায় নিজে থেকে পদত্যাগ না করলে; তিনি এই আইন রূপায়নের পথে হাঁটবেন।

আরও পড়ুনঃ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে মঞ্চে উঠে থাপ্পড় মারা যুবকের রহস্যমৃত্যু

বিধায়ক পদ ছাড়ার জন্য, গত সোমবার মুকুল রায়কে ২৪ ঘণ্টার সময়; বেঁধে দিয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। তবে তারপর ৩ দিন কেটে গেলেও; মুকুল পদত্যাগ করেননি। শুক্রবার বিধানসভায় বিজেপির চিফ হুইপ মনোজ টিগ্গা; শুভেন্দুর চিঠিটি অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে জমা দেন। আইনি পথেই, মুকুল রায়ের মোকাবিলা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে; বঙ্গ বিজেপি ও শুভেন্দু অধিকারী।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন