“চাপ দিয়েছে রাজ্য”, চি’টফান্ড কে’লেঙ্কারি নিয়ে সিবিআইকে চিঠি শুভেন্দু অধিকারীর

3674
চাপ দিয়েছে রাজ্য, চি'টফান্ড কে'লেঙ্কারি নিয়ে সিবিআইকে চিঠি শুভেন্দুর
চাপ দিয়েছে রাজ্য, চি'টফান্ড কে'লেঙ্কারি নিয়ে সিবিআইকে চিঠি শুভেন্দুর

শুভেন্দু অধিকারীর রাজনৈতিক অবস্থান নিয়ে; জল্পনা এখন তুঙ্গে। এরই মাঝে, সিবিআই অধিকর্তাকে চিঠি দিলেন; প্রাক্তন পরিবহন মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। সার’দাকাণ্ডের ত’দন্তে; অযাচিত হস্তক্ষেপের আ’শঙ্কায়; সিবিআইকে চিঠি দিলেন তৃণমূল বিধায়ক তথা রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী। সিবিআইয়ের রিজিওনাল ডিরেক্টর ও কেন্দ্রীয় ডিরেক্টরকে, চিঠিতে শুভেন্দু লিখেছেন; “চাপ দিয়ে ও রাজনৈতিক প্রভাব খাটিয়ে; সুদীপ্ত সেনকে দিয়ে উদ্দেশ্যপ্রণোদিত চিঠি লেখানো হয়েছে”। তৃণমূলের মন্ত্রিত্ব ছাড়ার পরই; সুদীপ্ত সেনের চিঠিতে তাঁর নাম থাকার কথা উল্লেখ করেছেন; প্রাক্তনমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। সুদীপ্ত সেনের সারদা চি’টফান্ড কে’লেঙ্কারি চিঠির উত্তরে; মুখ্যমন্ত্রী মমতার দিকেই, আঙুল তুলে সিবিআই-কে চিঠি শুভেন্দুর।

গত ১ ডিসেম্বর, মুখ্যমন্ত্রী ও প্রধানমন্ত্রীকে জে’লে বসে চিঠি লেখেন; সারদাকর্তা সুদীপ্ত সেন। তাতে সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তীর বি’রুদ্ধে; ৯ কোটি টাকা। শুভেন্দু অধিকারীর বি’রুদ্ধে; ৬ কোটি টাকা। অধীর চৌধুরীর বি’রুদ্ধে; ৬ কোটি টাকা ও বিমান বসুর বি’রুদ্ধে; ২ কোটি টাকা নেওয়ার অ’ভিযোগ তুলেছিলেন তিনি। ওই চিঠির প্রেক্ষিতেই সিবিআই ডিরেক্টরকে চিঠি দিলেন; শুভেন্দু অধিকারী। চিঠির বিষয়; ‘সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে; সারদাকাণ্ডের তদন্ত প্রভাবিত হওয়ার আশ’ঙ্কা’।

আরও পড়ুনঃ ‘দু পয়সার সংবাদিক’ এর পর ‘‌দু আনার নেতা’‌, সাংবাদিকদের পর নেতাদেরও ‘‌রেট বেঁধে দিলেন’‌ মহুয়া মৈত্র

চিঠিতে শুভেন্দু আশ’ঙ্কা প্রকাশ করে লেখেন; “প্রভাবশালীদের সঙ্গে হাত মিলিয়ে; জে’ল কর্তৃপক্ষ প্রভাব খাটাতে পারে সুদীপ্ত সেনের উপরে। তাঁকে চাপ দেওয়াও হতে পারে। আমার দৃঢ় বিশ্বাস; চিঠির লেখককে প্রভাবিত করা হয়েছিল। অথবা দু’র্নী’তির তথ্য গোপন করতে চাইছেন তিনি। আপনার অফিস দু’র্নী’তির ত’দন্ত করছে। আপনাকে অনুরোধ করছি; সুদীপ্ত সেনের এই উদ্দেশ্যপ্রণোদিত চিঠির; সব দিক খতিয়ে দেখা হোক”।

এমনকি কোন পরিস্থিতি; ও কোন প্রেক্ষাপটে দীর্ঘ সাত বছর পরে; সুদীপ্ত সেন চিঠি লিখলেন; সেটাও খতিয়ে দেখতে সিবিআইকে অনুরোধ করেন তিনি। সারদা মামলায় গত ৭ বছর ধরে জে’ল খাটছেন সুদীপ্ত সেন। এতদিন পরে সুদীপ্ত সেনের এই চিঠি শুভেন্দু অধিকারীকে বিপদে ফেলতেই লেখা; বলে ধারণা প্রকাশ করেছেন তিনি।

আরও পড়ুনঃ অমিত শাহ সফরেই বিজেপিতে শুভেন্দু যোগের সম্ভাবনা তুঙ্গে

শুভেন্দু অধিকারীর দাবি; যে পাঁচ রাজনীতিবিদের নাম সুদীপ্ত সেন তাঁর চিঠিতে উল্লেখ করেছেন; তাঁদের কারও নামই সা’রদাকা’ণ্ডের চা’র্জশিটে ছিল না। এমনকী গোটা তদন্তপ্রক্রিয়ায়; সারদাকর্তা কখনও তাদের বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ করেননি। শুভেন্দুর ইঙ্গিত ২০২১-এর নির্বাচনের আগে বিরোধী দলগুলির নেতাদের চাপে রাখতেই; সুদীপ্ত সেনকে দিয়ে তাঁদের নাম লিখিয়েছে; রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন