৭ দফায় লোকসভা ভোট শুরু ১১ এপ্রিল, ভোট গণনা ২৩ মে

443
২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের দিন ঘোষণা করে দিল নির্বাচন কমিশন/ The News বাংলা
২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের দিন ঘোষণা করে দিল নির্বাচন কমিশন

মোট ৭ দফায় ২০১৯ লোকসভা ভোট হবে। ভোট শুরু ১১ এপ্রিল। ওই দিন প্রথম দফার ভোট। ১৮ এপ্রিল দ্বিতীয় দফার ভোট। ২৩ এপ্রিল তৃতীয় দফার ভোট। ২৯ এপ্রিল চতুর্থ দফার ভোট। ৬ মে পঞ্চম দফা। ১২ মে ষষ্ঠ দফা ও ১৯ মে সপ্তম ও শেষ দফার ভোট।

প্রথম দফায় ২০ রাজ্যের ৯১টি আসনে ভোট। দ্বিতীয় দফায় ১৩ রাজ্যের ৯৭টি আসনে ভোট। তৃতীয় দফায় ১৪ রাজ্যের ১১৫টি আসনে ভোট। চতুর্থ দফায় ৯ রাজ্যের ৭১টি আসনে ভোট। পঞ্চম দফায় ৭ রাজ্যের ৫১ আসনে ভোট। ষষ্ঠ দফায় ৭ রাজ্যের ৫৯টি আসনে ভোট। সপ্তম ও শেষ দফায় ৮ রাজ্যের ৫৯টি আসনে ভোট।

আরও পড়ুনঃ সপ্তদশ লোকসভা ভোট ৭ দফায়, দেখে নিন কবে কোথায় কত আসনে ভোট

দেখে নিন একনজরে, কবে কোথায় কত আসনে ভোটঃ

২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের দিন ঘোষণা করে দিল নির্বাচন কমিশন/The News বাংলা
২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের দিন ঘোষণা করে দিল নির্বাচন কমিশন/The News বাংলা

রাজ্যে ৭ দফাতেই লোকসভা ভোট হবে। বাংলায় ১১ এপ্রিল প্রথম দফায় ২টি আসনে ভোট। ১৮ শে এপ্রিল দ্বিতীয় দফায় ৩ টি আসনে ভোট। ২৩ শে এপ্রিল তৃতীয় দফায় ৫ টি আসনে। ২৯ শে এপ্রিল চতুর্থ দফায় ৮ টি আসনে। ৬ মে পঞ্চম দফায় ৭ টি আসনে। ১২ মে ষষ্ঠ দফায় ৮ টি আসনে ভোট হবে। ১৯ মে সপ্তম ও শেষ দফার ভোটে ৯ টি আসনে ভোট।

ভোট গণনা হবে ২৩মে, ২০১৯। ওইদিনই জানা যাবে ভারতের শাসনভার আগামী ৫ বছরের জন্য কোন দলের হাতে থাকবে।

রবিবার বিকালেই ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের দিন ঘোষণা করে দিল নির্বাচন কমিশন। দেশের মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরা দিল্লিতে ভোটের দিনক্ষণ ঘোষণা করেন। এবার মোট ভোটারের সংখ্যা প্রায় ৯০ কোটি। প্রায় দেড় কোটি ভোটার বেড়েছে এবার।

আরও পড়ুনঃ একনজরে দেখে নিন বাংলায় লোকসভা ভোটের তারিখ

সব রাজ্যেই ভোটের সময় কেন্দ্রীয় বাহিনী রুট মার্চ করবে। পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা রাখা হবে। সব ভোট কেন্দ্রে থাকবে ভিভি প্যাট। ইভিএমে থাকবে প্রার্থীর ছবি।

আগামী ৩ জুন শেষ হবে চলতি লোকসভার মেয়াদ। তার আগেই ভোট পর্ব ও গননার কাজ শেষ করতে হত নির্বাচন কমিশনকে। ২০১৪-র লোকসভা ভোটের দিনক্ষণ সেই বছর ৫ মার্চ ঘোষণা করেছিল নির্বাচন কমিশন।

লোকসভা নির্বাচনের পাশাপাশি অন্ধ্রপ্রদেশ, ওডিশা, সিকিম এবং অরুণাচল প্রদেশের বিধানসভা নির্বাচনও একসঙ্গে হবে। ভোটের দিন ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গেই রবিবার থেকেই চালু হয়ে গেল আদর্শ আচরণবিধি। পুলিশ প্রশাসন চলে গেল নির্বাচন কমিশনের হাতে।

৩ বছরের বেশি সময় ধরে যে সমস্ত পুলিশ ও প্রশাসনের আধিকারিকরা একই জায়গায় আছে তাদের অন্য জায়গায় বদলি করতে পারে নির্বাচন কমিশন।

ভোটের দিন ঘোষণার আগে বিভিন্ন রাজ্যের বিভিন্ন বোর্ডের পরীক্ষা ও বিভিন্ন রাজ্যের ধর্মীয় অনুষ্ঠান, এমনকি আবহাওয়ার কথা মাথায় রেখেই ভোটের দিন ঘোষণা করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন কমিশনের হেল্প লাইন নম্বর ১৯৫০।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন