“সিঙ্গুর নন্দীগ্রামে কৃষকদের ভুল বুঝিয়েছে তৃণমূল”, দাবি করা সিপিআইএম কৃষক আন্দোলন করছে সেই তৃণমূলের সঙ্গেই

1885
"সিঙ্গুর নন্দীগ্রামে কৃষকদের ভুল বুঝিয়েছে তৃণমূল", দাবি করা সিপিএম কৃষক আন্দোলন করছে সেই তৃণমূলের সঙ্গেই

“সিঙ্গুর নন্দীগ্রামে কৃষকদের ভুল বুঝিয়েছে তৃণমূল”; দাবি করা সিপিএম এখন মোদী সরকারের বিরুদ্ধে কৃষক আন্দোলন করছে সেই তৃণমূলের সঙ্গেই। আর এই নিয়েই সরগরম; বাংলার রাজনীতি। ফের কি কেরল লবির সঙ্গে লেগে গেছে; আলিমুদ্দিন লবির? বাংলার রাজনৈতিক মহল; এখন সেটাই ভাবছে। সংসদে বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াইয়ে এখন; সিপিএমের সঙ্গে তৃণমূল নেতা নেত্রীরা। সংসদের বাইরে সেই বিক্ষোভের ছবি; সিপিএমের সর্বভারতীয় পেজ থেকে পোস্ট হয়েছে। তাতে দেখা যাচ্ছে, ছবিতে সিপিএমের কে কে রাগেশদের পাশাপাশি; রয়েছেন তৃণমূল সাংসদ দোলা সেন। আর এই নিয়েই শুরু হয়েছে; জোর বিতর্ক।

রাজ্যসভায় হাঙ্গামার জন্য; আট সাংসদকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। ডেপুটি চেয়ারম্যান হরিবংশ নারায়ণের সামনে থাকা; মাইক্রোফোন ও রুল বুক নিয়ে টানাটানি পর্যন্ত করেছিলেন; তৃণমূলের ডেরেক ও’ব্রায়েন। সাসপেন্ড সাংসদরা হলেন, তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন ও দোলা সেন; আপের সঞ্জয় সিং, কংগ্রেসের রাজু সাতাব, সইদ নাজির হুসেন ও রিপুন বোরা এবং সিপিআইএমের কে কে রাগেশ ও এলামারান করিম। সর্বভারতীয় সিপিএম নিজেদের পেজে; বহিষ্কৃত নিজেদের সাংসদদের পাশাপাশি; ছবি পোস্ট করেছে তৃণমূল নেত্রী দোলা সেনেরও। আর এখানেই শুরু হয়েছে; তুমুল বিতর্ক।

আরও পড়ুনঃ কেন্দ্রের সব প্রকল্পের টাকা দিতে হবে রাজ্য সরকারের হাতে, মমতার দাবি শুনে অবাক কেন্দ্র সরকার

বাংলা সিপিএমের লাইন হল; তৃণমূল-বিজেপি একই মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ। তৃণমূল ও বিজেপি থেকে; সমান দূরত্ব বজায় রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বাংলা বামেদের তরফ থেকে। আলিমুদ্দিন স্ট্রিট এও বলে; তৃণমূল আর বিজেপির মধ্যে বোঝাপড়া রয়েছে। ওদের লড়াই লোক দেখানো; ভিতরে ভিতরে ‘সেটিং’ আছে। আর সেই মতকেই; বুড়ো আঙুল দেখিয়ে দিল সর্বভারতীয় সিপিএম।

তাহলে কি, বিজেপি বিরোধিতায় এবার তৃণমূলের সঙ্গেই; লড়তে চাইছে কমিউনিস্ট পার্টি (মার্কসবাদী)? উঠে গেছে প্রশ্ন। রাজ্যসভা থেকে, সাসপেন্ড হওয়া ৮ সাংসদ; ‘গণতন্ত্রকে খুন করা হয়েছে’, প্ল্যাকার্ড নিয়ে রাজ্যসভার বাইরে বিক্ষোভ দেখান। সেখানে তৃণমূল-সিপিএম সব এক হয়ে যায়। আর এদিনের এই পোস্ট এর পর; অনেকের মধ্যেই চরম বিভ্রান্তি তৈরি হয়েছে। বামেদের মধ্যে আবার কেউ কেউ আবার আশঙ্কা করছেন; রাজ্য বিজেপি এই ছবিকে হাতিয়ার করে; তৃণমূল-সিপিএম এক বলে প্রচার শুরু করবে; বিধানসভা ভোটের আগে।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন