সুজিত জিতলেও হেরে গেলেন তমোনাশ, রাজ্যের প্রথম কোন বিধায়কের করোনায় মৃত্যু

3677
সুজিত জিতলেও হেরে গেলেন তমোনাশ, রাজ্যের প্রথম কোন নেতার করোনায় মৃত্যু
সুজিত জিতলেও হেরে গেলেন তমোনাশ, রাজ্যের প্রথম কোন নেতার করোনায় মৃত্যু

সুজিত জিতলেও হেরে গেলেন তমোনাশ; রাজ্যের প্রথম কোন বিধায়কের করোনায় মৃত্যু। করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেলেন; রাজ্যের বিধায়ক ও তৃণমূল নেতা তমোনাশ ঘোষ। কোভিডে আক্রান্ত হওয়ার পর; বাইপাসের ধারে একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন তিনি। বুধবার সকালে তাঁর মৃত্যু হয়। করোনায় আক্রান্ত হয়ে; পশ্চিমবঙ্গে এই প্রথম কোনও বিধায়কের মৃত্যু হল। এর আগে মন্ত্রী ও বিধায়ক সুজিত বসু; করোনা আক্রান্ত হবার পরে সেরে ওঠেন। পারলেন না ফলতার বিধায়ক; তমোনাশ ঘোষ।

আরও পড়ুনঃ আমফান দুর্নীতি, প্রকাশ্যে কান ধরে মানুষের কাছে ক্ষমা চাইল তৃণমূল পঞ্চায়েত সদস্য

২০০১ সালে বাম আমলেই; প্রথমবার দক্ষিণ ২৪ পরগনার ফলতা বিধানসভা থেকে; জয়ী হন তমোনাশ। তৃণমূলের অত্যন্ত দুঁদে নেতাদের মধ্যে; একজন ছিলেন তিনি। ছিলেন দলনেত্রি মমতার অত্যন্ত কাছের একজন মানুষ। ২০১১ সাল থেকে টানা বিধায়ক ছিলেন তমোনাশ ঘোষ। তাঁর বাড়ি কালীঘাটেই। চারবার বিধায়ক নির্বাচিত হয়েছিলেন তিনি।

আরও পড়ুনঃ আমফান ক্ষতির টাকা নিজের পুরো পরিবারের সবাইকে দিলেন তৃণমূল পঞ্চায়েত প্রধান

তমোনাশের মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করে; মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের টুইট; “অত্যন্ত দুঃখজনক ঘটনা। ১৯৯৮ থেকে দলের কোষাধ্যক্ষ; আমার ৩৫ বছরের সঙ্গী”। করোনায় আক্রান্ত হয়ে ওই বেসরকারি হাসাপাতালে; প্রায় এক মাস ধরে ভর্তি ছিলেন তিনি। মাঝে জানা গিয়েছিল; তাঁর শারীরিক অবস্থার উন্নতি হয়েছে। কিন্তু কিছুদিন আগে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছিলেন; তমোনাশের পরিস্থিতির অবনতির কথা। বুধবার সকালে খবর এল; তিনি প্রয়াত হয়েছেন।

আরও পড়ুনঃ আমফান ক্ষতিগ্রস্থদের টাকা মেরে দিল তৃণমূল, পঞ্চায়েত প্রধানকে দল থেকে তাড়িয়ে মুখরক্ষার চেষ্টা

তমোনাশের পরিবারের অন্যান্যরাও; করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন। কিন্তু তাঁরা ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে ওঠেন। সময় মতো চিকিৎসা করে; বাড়িও ফিরে যান। কিন্তু ভোটের লড়াইয়ে বিরোধীদের হেলায় হারালেও; করোনা-যুদ্ধে জয়ী হয়ে পারলেন না তৃণমূলের এই বিধায়ক। তৃণমূলের জন্মলগ্ন থেকেই; দলের অত্যন্ত নিষ্ঠাবান কর্মী ছিলেন তমোনাশ। দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ নিগমের; চেয়ারম্যানও ছিলেন তিনি।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন