স্বাস্থ্য কমিশনের নির্দেশকে বুড়ো আঙুল, ছয় হাসপাতালকে শায়েস্তা করতে ধরানো হল নোটিশ

1924
কমিশনের নির্দেশকে বুড়ো আঙ্গুল, ছয় হাসপাতালকে সায়েস্তা করতে ধরানো হল নোটিশ

স্বাস্থ্য কমিশনের নির্দেশকে বুড়ো আঙুল; ছয় হাসপাতালকে শায়েস্তা করতে ধরানো হল নোটিশ। অভিযোগ, করোনা চিকিৎসার নামে রোগী ও তার পরিবারকে লুঠে নিচ্ছে; কলকাতার কিছু প্রথম সারির নামি বেসরকারি হাসপাতাল। এমন অভিযোগ পেয়েই; নড়েচড়ে বসে স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কমিশন। করোনা চিকিৎসায় বেসরকারি হাসপাতালের খরচে লাগাম টানতে; অ্যাডভাইজরি জারি করেছিল স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কমিশন। তবে বেসরকারি হাসপাতালগুলির সংগঠন জানিয়েছিল; বেডভাড়া কমানো থেকে সর্বত্র রেট চার্ট ঝুলিয়ে রাখার; সে নির্দেশ মানতে পারবে না তারা।

আরও পড়ুনঃ মমতা সনিয়ার লড়াই শেষ, জেইই-নিট পরীক্ষা পিছিয়ে দেওয়ার আর্জি খারিজ করল সুপ্রিম কোর্ট

বাস্তবেও দেখা গেল সেই ঘটনাই সত্যি। স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কমিশনের, ১৫ দফা অ্যাডভাইজরি মানছে না; শহরের বেশিরভাগ হাসপাতালই। যে কারণে, ইতিমধ্যেই শহরের প্রথম সারির ছ’টি হাসপাতালকে; নোটিশ ধরিয়েছে স্বাস্থ্য স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কমিশন। কমিশনের পক্ষে ওই ছটি হাসপাতালের বিরুদ্ধে; মামলা রুজু করা হয়েছে। স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কমিশনের চেয়ারম্যান প্রাক্তন বিচারপতি অসীমকুমার বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন; “যে সমস্ত হাসপাতাল আমাদের অ্যাডভাইজরি মানছে না; তাদের বিরুদ্ধে স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে মামলা রুজু করা হয়েছে। আগামী ২৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে; তাদের জবাব তলব করা হয়েছে”।

আরও পড়ুনঃ করোনা পরিস্থিতিতেও হাসপাতালে দালালচক্রের রমরমা, কাঠগড়ায় কলকাতা মেডিক্যাল

নিয়ম না মানলে কমিশন কড়া ব্যবস্থা নেবে; স্বাস্থ্য কমিশনের চেয়ারম্যান অসীম বন্দ্যোপাধ্যায় সেই ইঙ্গিতও দিয়েছেন। ১৪ দিন আগে খরচের তালিকা তুলে ধরার জন্য; প্রতিটি হাসপাতালকে অ্যাডভাইজরি দিয়েছিল কমিশন। খরচের তালিকায় পরিষেবা ফির; বিস্তারিত বিবরণ দিতে বলা হয়। হাসাপাতালে ঢোকার মুখে ও রিসেপশন ডেস্ক থেকে, ক্যাশ কাউন্টার সর্বত্র; ওই বোর্ড লাগানোর নির্দেশ দেওয়া হয়। কিন্তু বাস্তবে ছটি হাসপাতালের মধ্যে; কেউই সেই নির্দেশ মানছে না। এতেই ক্ষুব্ধ কমিশন; কেন এরকমটা করা হয়েছে; হাসপাতাল-গুলোর কাছে, জানতে চাওয়া হয়েছে কমিশনের তরফে।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন