বাংলায় মধ্যযুগীয় ব’র্বরতা, ন্যাড়া করা হল বাড়ির বউকে, লজ্জায় গ্রামছাড়া নি’র্যাতিতা

42
বাংলায় মধ্যযুগীয় ব'র্বরতা, ন্যাড়া করা হল বাড়ির বউকে, লজ্জায় গ্রামছাড়া নি'র্যাতিতা (প্রতীকী ছবি)
বাংলায় মধ্যযুগীয় ব'র্বরতা, ন্যাড়া করা হল বাড়ির বউকে, লজ্জায় গ্রামছাড়া নি'র্যাতিতা (প্রতীকী ছবি)
Simple Custom Content Adder

বাংলায় মধ্যযুগীয় ব’র্বরতা, ন্যাড়া করা হল বাড়ির বউকে; লজ্জায় গ্রামছাড়া নি’র্যাতিতা। শি’হরিত করে দেওয়া, পূর্ব বর্ধমানের কেতুগ্রামে বউয়ের হাত কে’টে নেওয়া কাণ্ডের পর; এবার পশ্চিম মেদিনীপুরের ডেবরায় মধ্যযুগীয় ব’র্বরতা। বাড়ির বাইরে কাজে যাওয়ায়; এক গৃহবধূকে প্রকাশ্যে ন্যাড়া করল গ্রামের মোড়লরা। ঘটনাটিকে কেন্দ্র করে তীব্র উত্তেজনা ছড়িয়েছে এলাকায়; ঘটনার পর থেকেই লজ্জায় গ্রাম ছেড়েছেন নি’র্যাতিতা ওই গৃহবধূ।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, পশ্চিম মেদিনীপুরের ডেবরার মলিঘাটি গ্ৰাম পঞ্চায়েতের; চকঅনন্ত গ্রামের বাসিন্দা ওই গৃহবধূ। ১২ বছর আগে দাসপুরের বাসিন্দা এক যুবকের সঙ্গে; তাঁর বিয়ে হয়েছিল। দুই সন্তানকে নিয়ে দম্পতির অভাবের সংসার। স্বামী অসুস্থ হওয়ায়, নিজের সন্তানদের মুখ চেয়ে; রোজগারের তাগিদে বাড়ির বাইরে বেরিয়েছিলেন ওই গৃহবধূ। সেটাই কাল হল।

আরও পড়ুনঃ লজ্জার অন্ধকারে ডুবল বাংলা, দেশকে চমকে দিয়ে রাজ্যের বিধানসভায় প্রতিদিন ‘ছাপ্পা ভোট’

কেন বাইরে গিয়েছিল সে? বাড়ি ফিরতেই সেই প্রশ্ন তুলে, ওই গৃহবধুর মাথা ন্যাড়া করে দিল গ্রামের কয়েকজন মাতব্বর-মোড়ল। তাতে সায় দিল এলাকার মহিলারাও। কয়েকজন মহিলা আবার হাত লাগালেন; ওই গৃহবধুর মাথা কামানোর কাজে। মাথার চুল সব কেটে; ন্যাড়া করে দেওয়া হয়। তারপর থেকেই নিখোঁজ ওই মহিলা; বাড়ির লোকেরাও কোন খোঁজ পাচ্ছেন না ওই মহিলার।

আরও পড়ুনঃ ‘লজ্জায় বাংলা’, মধ্যশিক্ষায় তল্লাশি, পর্ষদ সভাপতিকে বাড়ি থেকে তুলে আনল সিবিআই

মহিলাকে ন্যাড়া করার ভিডিও করা হয়; তা সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল করা হয় শা’স্তির পরিমাণ বাড়াতে। বিদ্যুতের গতিতে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে; ঘটনার ভিডিও। মুহূর্তে ঘটনাটি জানাজানি হয়ে যায়; আশপাশের এলাকায়। ডেবরা থানায় মেয়ের নিঁখোজের অভিযোগ জানাতে গিয়ে; গোটা ঘটনা জানালেন ওই গৃহবধূর মা। অভিযোগ পাওয়ার পর গৃহবধূর খোঁজ শুরু করেছে; ডেবরা থানার পুলিশ।

ডেবরার বিডিও শিঞ্জিনী সেনগুপ্ত বলেছেন, “নেড়া করার ঘটনায় এখনও পর্যন্ত কেউ অভিযোগ করেননি; তবে খোঁজ নিচ্ছি”। শুক্রবার এলাকায় গিয়ে সাংবাদিকরা জানতে পারেন; ওই মহিলার স্বামী নিজেদের কন্যাসন্তানকে বিক্রি করেছেন; সংসারের অভাব মেটাতে। তবে ওই মহিলার স্বামী এই নিয়ে; কিছুই বলতে চাননি। ন্যাড়া করা হল বাড়ির বউকে, বিক্রি হচ্ছে কন্যাসন্তান; বাংলায় কি এখনও চলছে মধ্যযুগীয় ব’র্বরতা; পুলিশ-প্রশাসনের কাছে কি কোন খবরই নেই?

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন