আফগানিস্তানে মাস্ক, ভ্যাকসিন, দূরত্ব, স্যানিট্যাইজেশনের কোন অস্তিত্ব নেই, বিশ্বের বিস্ময় ‘তালিবান’

2999
দেশে মাস্ক, ভ্যাকসিন, দূরত্ব, স্যানিট্যাইজেশনের অস্তিত্ব নেই, বিশ্বের বিস্ময় 'তালিবান'
দেশে মাস্ক, ভ্যাকসিন, দূরত্ব, স্যানিট্যাইজেশনের অস্তিত্ব নেই, বিশ্বের বিস্ময় 'তালিবান'

গোটা পৃথিবী একদিকে; আর আফগানিস্তান একদিকে। এই দেশে যেন; করোনার কোন অস্তিত্বই নেই। দেশে মাস্ক, ভ্যাকসিন, দূরত্ব, স্যানিট্যাইজেশনের কোন অস্তিত্বই নেই; বিশ্বের বিস্ময় ‘তালিবান’। সাধারণ মানুষের পাশাপাশি বিজ্ঞানীরাও ভাবছেন; “কি কারণে তালিবান রাজত্বে; ছড়িয়ে পড়ছে না করোনা মহামারী”। প্রতিবেশী পাকিস্তানকে কাবু করলেও; আফগানিস্তান ও তালিবানকে কাবু করতে পারেনি করোনা ভাইরাস। তালিবানদের কাছে মাস্ক, ভ্যাকসিন, দূরত্ব, স্যানিট্যাইজেশন; এগুলির কোন অস্তিত্ব নেই।

আরও পড়ুনঃ ভোল পাল্টাল তালিবান, কাশ্মীরে মুসলিমদের নিয়ে হবে ‘জিহাদ’ নিয়ে আলোচনা

শুধু তাই নয়, আফগানিস্তানে নিজেদের আধিপত্য কায়েমের পর; বহির্বিশ্বের কাছে নিজেদের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করতে; তালিবানরা যতই প্রচার করুক না কেন; আসলে যে তারা বিশ বছর আগের তালিবানেই রয়েছে; তা ক্রমে প্রকাশ পাচ্ছে। এর মধ্যে অবাক করার মতো সংযোজন; করোনার টিকা নিয়ে তাদের ফতোয়া। সে দেশের সমস্ত সরকারি এবং বেসরকারি হাসপাতালগুলিকে; দেশের আমজনতাকে করোনার টিকা দিতে নিষেধ করেছে তালিবান কর্তৃপক্ষ। ফতেয়া অমান্য করলে; হাসপাতাল বন্ধ করে দেওয়া হবে; বলেও জানিয়ে দিয়েছে তালিবানরা।

তবে কাবুলের বেসরকারি হাসপাতাল শিনো জাদার, এক মহিলা ডাক্তার বলেছেন; “দেশের প্রতিটি সরকারি এবং বেসরকারি হাসপাতালকে, তালিবানরা জানিয়ে দিয়েছে; আগে তাদের করোনার টিকা দিতে হবে। তারপর আমজনতার কথা ভাবা যাবে। এর ফলে সাধারণের টিকাকরণ প্রক্রিয়া; বন্ধই রয়েছে আফগানিস্তানে। দেশে করোনা পরীক্ষার ব্যবস্থাই নেই এখন; তো কি করে করোনা পরিস্থিতি ধরা যাবে? বলছেন কাবুলের বাসিন্দারা।

আরও পড়ুনঃ চিন্তায় দেশ, কাবুল থেকে কাশ্মীর, তালিবানের ভরসায় ফের আশায় বুক বাঁধছে পাকিস্তান

তবে মাস্ক পড়ার কোন চল নেই; তালিবানদের মধ্যে। বিমানবন্দরের কাছেই কাবুলের অন্যতম সরকারি হাসপাতাল কাসাবা; গত তিন সপ্তাহের বেশি সময় ধরে, বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। দেশ ছেড়ে আফগান বাসিন্দাদের চলে যাওয়ার হিড়িকে; বিমানবন্দর সমেত সংলগ্ন এলাকায় চরম বিশৃঙ্খলার কারণে হাসপাতাল বন্ধের সিদ্ধান্ত। তার আগেই বন্ধ হয়ে গেছে; করোনা টিকাকরণ। তবে তালিবানরা এখন ভ্যাকসিন নিতে চায়; তবে বাকি কোন করোনা বিধিনিষেধ মানতে তারা কোনরকমেই রাজি নয়।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন