ফের চিকিৎসা না পেয়ে করোনায় মৃত্যু যুবকের, কাঠগড়ায় শহরের অন্যতম সরকারি কোভিড হাসপাতাল

2345
ফের চিকিৎসা না পেয়ে করোনায় মৃত্যু যুবকের, কাঠগড়ায় শহরের অন্যতম সরকারি কোভিড হাসপাতাল

ফের চিকিৎসা না পেয়ে করোনায় মৃত্যু যুবকের; কাঠগড়ায় শহরের অন্যতম সরকারি কোভিড হাসপাতাল। ইছাপুরের শুভ্রজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের পর; এবার হাসপাতালের গাফিলতিতে করোনার বলি; জয়নগরের যুবক। শুভ্রজিতের মাকে ছেলেকে হাসপাতালে ভর্তি করতে আত্মহত্যার হুমকি দিতে হয়েছিল; তবুও শেষ রক্ষা হয়নি। এবার ফের করোনা রোগী চিকিৎসায় গাফিলতির অভিযোগে; কাঠগড়ায় শহরের অন্যতম সরকারি কোভিড হাসপাতাল।

আরও পড়ুনঃ চার বছরের ছেলে হারাল মা-কে, সামনে থেকে লড়াই করে, বাংলার করোনা শহিদ দেবদত্তা রায়

জানা গিয়েছে, জুন মাস থেকেই অসুস্থ হয়ে পড়ে; অশোক নামে বছর ২৬-এর ওই যুবক। জ্বরের সঙ্গে ছিল; শ্বাসকষ্টও। বারাসাতের একটি হাসপাতালে; তার টাইফয়য়েডের চিকিৎসা শুরু হয়। রবিবার রাতে শ্বাসকষ্ট বাড়তে শুরু হলে; সে কোভিড পজিটিভ বলে জানায় চিকিৎসকরা। সোমবার অশোক নামের ওই যুবককে নিয়ে আসা হয়; এসএসকেএম-এর জরুরি বিভাগে।

রোগীর পরিবারকে বলা হয়; এসএসকেএম-এর ফিভার ক্লিনিকের আউটডোর চলছে; শম্ভুনাথ মেডিক্যাল কলেজে চলছে। শম্ভুনাথ মেডিক্যাল কলেজে আনা হলে; তাকে দ্রুত মেডিক্যাল কলেজে স্থানান্তরিত করা হয়। দক্ষিণ বারাসাত থেকেএসএসকেএম-এ আনার সময়; অ্যাম্বুল্যান্সে কোনওরকম অক্সিজেন দেওয়া হয়নি অশোককে।

আরও পড়ুনঃ এগিয়ে বাংলায় বিধায়ক-কেও খুন করে ঝুলিয়ে দেওয়া যায়, সাধারণ মানুষের হাল কি

এমনকি এসএসকেএম-এও; কোনওরকম অক্সিজেনের ব্যবস্থা করা হয়নি। মেডিক্যাল কলেজে ভর্তির আগেই; মৃত্যু হয় অশোকের। এক হাসপাতাল থেকে আরেক হাসপাতাল ঘোরানোর জন্যই; বাঁচানো গেল না তাদের সন্তানকে; অভিযোগ অশোকের পরিবারের। সন্তানকে বাঁচানোর আপ্রান চেষ্টা করেও; বিফল অশোকের মা বাবা; এমনকি সন্তানের মৃত্যুর পর দেহও তাদেরকে দেওয়া হয়নি। হাসপাতাল জানিয়ে দেয় করোনার উপসর্গ থাকায়; রোগীর দেহ পরিবারকে দেওয়া যাবে না।

মুখ্যমন্ত্রী বারে বারে নির্দেশ দিয়েছিলেন; প্রাথমিক চিকিৎসা না দিয়ে কোনও রোগীকে ফেরানো যাবে না; তারপরেও চিকিৎসার গাফিলতির অভিযোগ উঠছে রাজ্যের সরকারি হাসপাতাগুলির বিরুদ্ধে। চিকিৎসা না পেয়ে আরেক সন্তানকে; আজ মায়ের কোল খালি করে চলে যেতে হল। হাসপাতালের বিরুদ্ধে কি কোনও কড়া পদক্ষেপ নেবে সরকার; উঠছে প্রশ্ন।

Please follow and like us:
error

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন