হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের

534
হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের/The News বাংলা
হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের/The News বাংলা
Simple Custom Content Adder

The News বাংলা, শিলিগুড়িঃ দেশ জুড়ে বেড়েছে কৃষক আত্মহত্যার ঘটনা। কংগ্রেস এর পর বিজেপি আমলেও কৃষকদের হাল ফেরেনি। এর প্রতিবাদে দেশ জুড়েই আন্দোলনে নেমেছে বাম কৃষক সংগঠনগুলি। বাংলাতেও সিঙ্গুরের পর এবার শিলিগুড়িতে কৃষক আন্দোলনে নামল বামেরা। তবে কৃষকদের সেই উত্তরকন্যা অভিযানে হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের।

আরও পড়ুন: ভিড়ে ঠাসা কলকাতা মেট্রোতে আগুন ও ধোঁয়া, অসুস্থ বহু

বাংলার কৃষকদের দাবী দাওয়া পুরণে মহারাষ্ট্রের ধাঁচে উত্তরকন্যা অভিযানে নামে বামপন্থি কৃষক সংগঠনগুলি। মহারাষ্ট্র, রাজস্থানের কায়দায় বাংলার সমস্ত কৃষকদের কৃষিঋণ মকুব, ফসলের ন্যায্যমূল্য, চা শ্রমিকদের নুন্যতম বেতন সহ একাধিক দাবিতে বামপন্থি কৃষক সংগঠনগুলি, সারা ভারত ক্ষেত মজদুর ইউনিয়ান ও কৃষক সভার নেতৃত্বে বৃহস্পতিবার শিলিগুড়ির উত্তরকন্যা অভিযান করল গোটা উত্তরবঙ্গের কৃষক ও মজদুররা।

আরও পড়ুনঃ EXCLUSIVE: ৫৫ নম্বরের পরীক্ষায় পরীক্ষার্থীকে ৫৯ দিয়ে এসএসসি-র নতুন কীর্তি

হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের/The News বাংলা
হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের/The News বাংলা

আরও পড়ুন: EXCLUSIVE: ভোটের আগে বাংলার বিখ্যাত সাংবাদমাধ্যমের সঙ্গে ‘সরকারি’ সন্ধি মমতার

উত্তরবঙ্গের ৬টি (মালদহ বাদে) জেলার প্রত্যন্ত গ্রামগঞ্জ থেকে কয়েক হাজার কৃষক প্রথমে মহানন্দাঘাটে এসে জমায়ত হয়। এরপর সেখান থেকে একটি মিছিল করে এয়ারভিউ মোর থেকে শুরু হয়ে তিনবাত্তি মোড়ে এসে শেষ হয়। মিছিলে যোগ দেন প্রায় কয়েক হাজার কৃষক, শ্রমিক, মজুদুর সহ সাধারণ মানুষ। শুরু হয় উত্তরকন্যা অভিযান। তবে উত্তরকন্যা ঢোকার আগেই তিনবাত্তি মোড়ে পুলিশ ব্যারিকেড দিয়ে মিছিল আটকে দেয়।

আরও পড়ুনঃ ৫ দিন বন্ধ ব্যাঙ্ক, উৎসবের সময় চরম সমস্যায় আমজনতা

এদিন সমাবেশের মাঝেই সেখানে প্রত্যেক কৃষক, মজদুরকে রুটি ও আলুর দম খাওয়ানো হয়। এরজন্য বুধবার রাতে শহরের বাড়ি বাড়ি থেকে রুটি ও তরকারী সংগ্রহ করা হয়। কিন্তু বিরোধীদের দাবি, সমাবেশ শেষে দেখা যায় প্রচুর রুটি নষ্ট করেছে কৃষকরা। তাদের অভিযোগ, প্রায় এক ট্রাক রুটি ও তরকারী ডাম্পিং গ্রাউন্ডের উদ্দেশ্যে নিয়ে যাওয়া হয়।

আরও পড়ুনঃ EXCLUSIVE: কলকাতা থেকে পুলিশ ও ব্যবসায়ীদের টাকা যাচ্ছে জঙ্গিদের হাতে

হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের/The News বাংলা
হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের/The News বাংলা

আরও পড়ুনঃ নেতাদের গুন্ডা পোষা না গুন্ডাদের নেতা হওয়া, প্রকাশ্যে বন্দুকবাজির কারন কি

এছাড়া যত্রতত্র অসংখ্য রুটি পড়ে থাকতেও দেখা যায়। সেটা নিয়েই শুরু হয়েছে বিতর্ক। প্রশ্ন ওঠে যেখানে কৃষকদের মুখে হাসি ফোটানোর জন্য আন্দোলন, সেই আন্দোলনে কৃষকরা এভাবে আনাজের অপচয় করছে কিভাবে? প্রত্যক্ষদর্শী স্থানীয় বাসিন্দা কেষ্ট পাল বলেন, “অনেক রুটি বেচে গেছে। তা ফেলে দেওয়া হয়েছে। এক ট্রাক রুটি ডাম্পিং গ্রাউন্ডের ফেলতে নিয়ে গেছে”।

আরও পড়ুনঃ ‘রাজনীতিতে টিকে থাকতে গেলে তেল দিতেই হবে’ বিস্ফোরক তৃণমূল সাংসদ

এভাবে রুটি নষ্ট হওয়ায় তার মতো আরও মানুষের এক বক্তব্য, রুটিগুলো এভাবে ফেলে না দিয়ে তা গরীবদের মধ্যে বিলিয়ে দিতে পারত। যদিও এই অভিযোগ অস্বীকার করেন সিপিএম নেতা মুকুল সেনগুপ্ত। তিনি বলেন, রুটি দিতে গিয়ে কিছু রুটি পড়ে থাকতে পারে। কিন্তু এক ট্রাক রুটি নষ্ট হয়েছে সে কথা সত্যি নয়। এটা বিরোধীদের অপপ্রচার বলে দাবি তার।

হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের/The News বাংলা
হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে কৃষক আন্দোলনে ইতিহাস বাংলার বামেদের/The News বাংলা

অন্যদিকে দার্জিলিং জেলা সিটুর সাধারন সম্পাদক সমন পাঠক বলেন, প্রায় ১ লক্ষ ৬০হাজার রুটি সংগ্রহ হয়েছে। অনেক দুর থেকে কৃষকসভা ও ক্ষেত মজদুর ইউনিয়নের কর্মীরা এই সমাবেশে যোগদান করতে এসেছেন। তাদের জন্য রুটি ও তরকারীর আয়োজন করা হয়েছিল। শহরের প্রচুর মানুষ রাতে রুটি ও তরকারী বানিয়ে দিয়েছেন। তবে ১০ হাজার কৃষক এর জন্য কেন প্রায় ১ লক্ষ ৬০হাজার রুটি সংগ্রহ করা হল, সেটাই প্রশ্ন।

আরও পড়ুন: লোকসভায় মোদীর তিল তালাক বিল বিতর্কে বিরোধিতায় কংগ্রেস বাম তৃণমূল

গত ২৯শে নভেম্বর সিঙ্গুর কিষাণ মার্চে লালঝান্ডার বর্ণময় স্রোত দেখেছিল পশ্চিমবাংলাসহ গোটা দেশ। এবার শিলিগুড়ি মহানগরও সাক্ষী হলো লালঝান্ডার জনস্রোতের। এদিন উত্তরবঙ্গের কৃষিজীবী মানুষ লাল ঝান্ডা নিয়ে সোচ্চার হলেন তাঁদের দাবিতে। বুধবার রাতে শিলিগুড়ির ৪৭টি ওয়ার্ডে বাড়ি বাড়ি ঘুরে রুটি এবং তরকারি সংগ্রহ করেছেন স্বেচ্ছাসেবকরা। অন্নদাতাদের এই অভিযানের শরিক হতে দুহাত ভরে সাহায্য এগিয়ে দিয়েছেন শিলিগুড়ির মানুষ।

আরও পড়ুন: নেতাজী সুভাষচন্দ্র বসুর ‘আজাদ লড়াই’কে সম্মান নরেন্দ্র মোদীর

পদযাত্রীদের হাতে সংগৃহীত লক্ষাধিক রুটি ও তরকারি তুলে দিয়েছেন স্বেচ্ছাসেবকরা। কিন্তু এত রুটি প্রায় ১ লক্ষ ৬০হাজার রুটি কেন সংগ্রহ করা হল, সেটাই প্রশ্ন। ফলে যা হবার তাই হয়েছে। হাজার হাজার রুটি নষ্ট করে, কৃষক আন্দোলনে এবার নতুন ইতিহাস বাংলার বামেদের। সত্যি কৃষকরা এত খাবার নষ্ট করে? রুটি রুজির লড়াই যারা করছেন তাঁরা নিজেরাই এত রুটি নষ্ট করলেন কি করে? প্রশ্ন কিন্তু উঠছে।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন