পাকিস্তানের হাতে যুদ্ধবন্দি ভারতের যুদ্ধবিমান পাইলট উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন

3840
পাকিস্তানের হাতে যুদ্ধবন্দি ভারতের যুদ্ধবিমান পাইলট উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন/The News বাংলা
পাকিস্তানের হাতে যুদ্ধবন্দি ভারতের যুদ্ধবিমান পাইলট উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন/The News বাংলা
Simple Custom Content Adder

“আমি উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন এবং আমার সার্ভিস নম্বর হলো ২৭৯৮১। আমি একজন ফ্লাইট পাইলট এবং আমি হিন্দু। আমি দুঃখিত এর থেকে বেশি কিছুই আমি বলবো না”। পাকিস্তানের হাতে ধরা পরার পর ঠিক এই ভাষাতেই নিজের সাহস দেখান উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন। বুধবার মিগ ২১ ভেঙে পরার পর পাক মাটিতে প্যারাশুটে নেমেই পাকিস্তানের হাতে ধরা পরে যান তিনি। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে মারধর করা হচ্ছে তাঁকে।

দেখুন ভারতের যুদ্ধবিমান পাইলট উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন এর ধরা পরার মুহূর্তঃ

পাকিস্তানের হাতে যুদ্ধবন্দী ভারতের যুদ্ধবিমান পাইলট উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন। ভারত এখনও এই পাইলটের নিখোঁজ হবার কথা বললেও ভারতীয় বায়ু সেনার এই অফিসার যে পাক হেফাজতেই আছেন সেটা এখন পরিস্কার। বিভিন্ন ভিডিও প্রকাশ করে সেই ঘটনার সত্যতা জানান দিয়েছে পাকিস্তান প্রশাসন। উইং কম্যান্ডার অভিনন্দনকে যুদ্ধবন্দি হিসাবেই দেখা হবে জানিয়েছেন ভারতীয় প্রতিরক্ষা দফতর।

ভারতীয় বিমান ধ্বংস ও পাইলটকে ধরে ফেলার ভিডিও প্রকাশ করল পাকিস্তান/The News বাংলা
ভারতীয় বিমান ধ্বংস ও পাইলটকে ধরে ফেলার ভিডিও প্রকাশ করল পাকিস্তান/The News বাংলা

পাকিস্তানের ইন্টার সার্ভিস পাবলিক রিলেশন বিভাগের ডিজি মেজর জেনারেল আসিফ ঘফুরের দাবি, “নিয়ন্ত্রণরেখা পেরিয়ে পাকিস্তানের আকাশসীমায় ঢুকে পড়া দুটি ভারতীয় বায়ুসেনার যুদ্ধবিমানকে পাক বায়ুসেনার পক্ষ থেকে গুলি করে নামানো হয়”। একটি যুদ্ধবিমান আজাদ কাশ্মীরের মধ্যে পড়ে। অন্যটি ভারতীয় অংশে থাকা কাশ্মীরের মধ্যে পড়েছে বলে টুইটে দাবি করা হয়েছে। এক ভারতীয় পাইলটকে পাক বাহিনী গ্রেফতারও করেছে বলে দাবি করেছে পাকিস্তান। জানান হয়েছে তার নাম উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন ভর্থমান। তিনি মিগ ২১ বিমানের পাইলট।

আরও পড়ুনঃ যুদ্ধের উত্তেজনা ভারত পাক সীমান্তে নামল ট্যাঙ্ক, সমুদ্রে প্রস্তুত যুদ্ধজাহাজ

পাক সেনার ISPR-এর ডিজি মেজর জেনারেল এ গফুরের দাবি, “সকালে পাক বায়ুসেনার বিমান হানার জবাব দিতে সিমান্তরেখা পেরিয়ে পাকিস্তানের আকাশসীমায় এসেছিল ২টি ভারতীয় যুদ্ধবিমান। তাদের ধ্বংস করা হয়েছে। একটি পড়ে পাক অধিকৃত কাশ্মীরে ও অন্যটি পড়ে ভারত অধিকৃত কাশ্মীরে। গ্রাউন্ড টু এলাকা থেকে এক ভারতীয় পাইলটকে গ্রেফতার করেছে সেনাবাহিনী”। পাক সেনার তরফ থেকে ওই ভারতীয় পাইলটের ছবিও প্রকাশ করা হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ কাশ্মীরে ভেঙে পড়ল ভারতীয় বিমানবাহিনীর হেলিকপ্টার

এই দাবির প্রেক্ষিতে ভারতের পক্ষ থেকে জানান হয়েছে, পাকিস্তানের একটি এফ১৬ বিমানকে ধ্বংস করার পর ভারতের একটি মিগ২১ বিমান ধ্বংস হয়েছে। তার পাইলট এখনও নিখোঁজ। তবে পরিস্থিতি ক্রমশ উত্তপ্ত হওয়ায় প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক ডাকা হয়েছে। সেখানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংহ, প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ ছাড়াও জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভাল উপস্থিত রয়েছেন। সবমিলিয়ে দুদেশের সীমান্তে উত্তেজনার পারদ ক্রমেই চড়ছে।

আরও পড়ুনঃ ভারত পাক সীমান্তে আকাশের লড়াইয়ে দুই দেশের দুই যুদ্ধবিমান ধ্বংস

পাকিস্তান সেনার তরফ থেকে দাবি করা হয়েছে, তারা দুটি বিমানে গুলি করে। একটি তাদের নিয়ন্ত্রণাধীন এলাকায় পড়েছে বলে দাবি করেছে পাকিস্তান। পাকিস্তান সেনার তরফ থেকে বলা হয়েছে, ভারতীয় বায়ু সেনা নিয়ন্ত্রণ রেখা লঙ্ঘন করেছিল। পাকিস্তানের বায়ু সেনা দুটি ভারতীয় যুদ্ধ বিমানকে গুলি করে নামায়। যার একটি পড়ে পাকিস্তান অধিকৃত কাশ্মীরে, অপরটি ভারতের কাশ্মীরে। ভারতের এক পাইলটকে গ্রেফতার করা হয়েছে, তাঁর নাম উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন ভর্থমান বলে দাবি করেছে পাকিস্তান।

এই সংক্রান্ত খবরঃ পাকিস্তানের যুদ্ধ বিমান ধ্বংস করে দিল ভারতীয় বিমান বাহিনী
এই সংক্রান্ত খবরঃ ভারতীয় যুদ্ধবিমান পাইলটকে ধরে ফেলার ছবি ও ভিডিও প্রকাশ করল পাকিস্তান

ভারতীয় স্বরাষ্ট্র দফতরের তরফে বলা হয়েছে এই সব বিষয়ে খোঁজ করা হচ্ছে। পাকিস্তানের হাতে ধরা পরলে উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন ভর্থমানকে যুদ্ধবন্দি হিসাবে গণ্য করা হবে বলেই জানিয়েছে ভারতীয় স্বরাষ্ট্র দফতর। তবে ভারতীয় বায়ু সেনার পাইলটকে ধরা ছাড়া আর কিছুই বলতে চায়নি পাকিস্তান। বুধবার মিগ ২১ ভেঙে পরার পর পাক মাটিতে প্যারাশুটে নেমেই পাকিস্তানের বাসিন্দাদের হাতে ধরা পরে যান তিনি। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে মারধর করা হচ্ছে তাঁকে।

আরও পড়ুনঃ আবার সাফল্য ভারতীয় সেনার, কাশ্মীরে খতম দুই পাক জইশ জঙ্গি

জেনেভা চুক্তি অনুযায়ী উইং কম্যান্ডার অভিনন্দন কে সুরক্ষিত ভাবে ভারতে ফেরত পাঠানোর দাবি ইতিমধ্যেই ভারতে থাকা পাক ডেপুটি হাই কমিশনারকে জানিয়ে দিয়েছে ভারত সরকার।

আপনার মোবাইলে বা কম্পিউটারে The News বাংলা পড়তে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন