পুলওয়ামা হামলার জেরে পাক বন্দিকে পিটিয়ে মারল ভারতীয়রা

237
পুলওয়ামা হামলার জেরে পাক বন্দিকে পিটিয়ে মারল ভারতীয়রা/The News বাংলা
পুলওয়ামা হামলার জেরে পাক বন্দিকে পিটিয়ে মারল ভারতীয়রা/The News বাংলা
Simple Custom Content Adder

কাশ্মীরের পুলওয়ামায় আধাসেনার উপর হামলার জের ছড়িয়ে পরল এবার জেল বা কারাগার বা সংশোধনাগারেও। রাজস্থানের জয়পুর সেন্ট্রাল জেলে আটক এক পাক বন্দিকে পিটিয়ে মারল অন্য ভারতীয় বন্দিরা। ঘটনার খবর বাইরে আসতেই হইচই শুরু হয়েছে গোটা দেশ জুড়ে। প্রসঙ্গত পুলওয়ামায় শহিদ ৪৯জন সিআরপিএফ জওয়ানের মধ্যে রাজস্থানের ১৪জন বাসিন্দা ছিলেন।

আরও পড়ুনঃ ইমরানের সুরেই পাকিস্তানের পক্ষে মুখ খুললেন কাশ্মীরের এই নেত্রী

পুলওয়ামায় ৪৯ জন সিআরপিএফ জওয়ানের মৃত্যুর পর থেকেই দেশ জুড়ে পাকিস্তান বিরোধী ক্ষোভ বাড়ছে। সেই ক্ষোভের আঁচ এ বার আছড়ে পড়ল জেলের অভ্যন্তরেও। শাকারউল্লাহ ওরফে মহম্মদ হানিফ নামে এক পাকিস্তানি বন্দিকে পিটিয়ে মারল বাকি ভারতীয় বন্দিরা। মৃত শাকারউল্লাহ ওরফে মহম্মদ হানিফ, ভারতে ঢুকে তথ্য সংগ্রহ এবং পাচারের অভিযোগে গ্রেফতার করে পুলিশ। ঘটনার কথা স্বীকার করেছেন রাজস্থানের আইজি (কারা) রুপিন্দর সিংহ।

পুলওয়ামা হামলার জেরে পাক বন্দিকে পিটিয়ে মারল ভারতীয়রা/The News বাংলা
পুলওয়ামা হামলার জেরে পাক বন্দিকে পিটিয়ে মারল ভারতীয়রা/The News বাংলা

পাকিস্তানের মদতপুষ্ট জইশ-ই-মহাম্মদের হামলার পরই পাকিস্তানকে একঘরে করেছে ভারত। পাকিস্তানকে দেওয়া মোস্ট ফেভারড নেশনস এর তকমা বাতিল করা হয়েছে। এমনকি নিজেদের হাইকমিশনারকে ‘প্রত্যাহারও’ করে নিয়েছে নয়াদিল্লি ও ইসলামাবাদ। পাকিস্তানকে সবরকম ভাবে বয়কটের সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভারত। গোটা দেশে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে গড়ে উঠেছে জনমত। সেই ক্ষোভের আগুন এবার ছড়িয়ে পড়ল জেলের ভিতরেও।

আরও পড়ুনঃ ভারতের সব মন্দির গুঁড়িয়ে দেবার হুমকি পাকিস্তানের মন্ত্রীর

“ভারত যদি আক্রমণ করে তাহলে তার উত্তরে পাল্টা জবাবও দেবে পাকিস্তান”, বলে এক ভিডিও বার্তায় ভারতকে মঙ্গলবারই হুঁশিয়ারি দেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। গত ১৪ ফেব্রুয়ারি কাশ্মীরের পুলাওয়ামায় পাক জঙ্গি গোষ্ঠী জইশ-ই-মহম্মদের হামলায় আধাসামরিক বাহিনী সিআরপিএফ-র ৪৯জন জওয়ান শহিদ হন। ওই হামলার পর থেকেই বদলার দাবিতে সরব গোটা ভারত। উত্তেজনা বজায় আছে কাশ্মীরেও। আর এইসময়েই ভারতকে হুঁশিয়ারি দিয়ে ইমরান খান এমন মন্তব্য করেন। এই হুশিয়ারির বিরুদ্ধে ক্ষোভ এবার আছড়ে পড়ল সংশোধনাগারেও ভিতরেও।

আরও পড়ুনঃ ভারতকে হুঁশিয়ারি দিলেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান

বেশ কিছুদিন ধরেই, জয়পুর জেলে বন্দি ছিল অনুপ্রবেশ এবং গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে গ্রেফতার হওয়া পাক নাগরিক শাকারউল্লাহ ওরফে মহম্মদ হানিফ। জয়পুর জেল কর্তৃপক্ষ সূত্রে খবর, বুধবার দুপুরে তার উপর চড়াও হয় জেলের অন্যান্য সাজাপ্রাপ্ত ও অন্যান্য অভিযুক্তরা। মূলত সাজাপ্রাপ্ত তিন দাগি আসামী তাঁকে মারধর শুরু করে।

আরও পড়ুনঃ পাকিস্তান নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত রিলায়েন্সের মুকেশ আম্বানির

পরে তার সঙ্গে যোগ দেয় অন্য বন্দিরাও। শাকারউল্লাহ ওরফে মহম্মদ হানিফকে বেধড়ক পেটানো হয়। জয়পুর জেল সূত্রে খবর, বাঁশ-লাঠি দিয়ে পেটানোর পাশাপাশি তাঁকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেলও ছোড়া হয়। জেলের মধ্যে ঘটনাস্থলেই লুটিয়ে পড়ে ওই পাক বন্দি। খবর পেয়েই জেলের বিপদ ঘণ্টি বাজানো হয়। সঙ্গে সঙ্গেই জেলের নিরাপত্তারক্ষীরা ছুটে যান।

আরও পড়ুনঃ ভারতীয় সেনার বদলা, খতম পুলওয়ামা কাণ্ডে জড়িত দুই পাক জঙ্গি

ক্ষিপ্ত ভারতীয় বন্দিদের হাত থেকে শাকারউল্লাহকে মুক্ত করার চেষ্টা করেন জেলের নিরাপত্তারক্ষীরা। পাশাপাশি পুলিশ প্রশাসনকেও খবর পাঠানো হয়। একটি মেডিক্যাল টিম এবং পুলিশ কর্মীরা গিয়ে গুরুতর আহত পাক বন্দিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। হাসপাতাল সূত্রে খবর, ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় শাকারউল্লাহ ওরফে মহম্মদ হানিফের।

আরও পড়ুনঃ কাশ্মীরে বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতাদের নিরাপত্তা তুলে নিল মোদী সরকার

এই ঘটনায় দেশ জুড়ে শুরু হয়েছে তুমুল আলোচনা। কেন্দ্রকেই এই হিংসার জন্য দায়ি করেছে কংগ্রেস সহ বিরোধী দলগুলি। বিজেপির তরফ থেকে এটিকে ক্ষোভের বহিপ্রকাশ বলেই জানান হয়েছে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে কেন্দ্র স্বরাষ্ট্র দফতর। জয়পুর জেলে গেছেন পদস্থ জেল কর্তারা। কি ভাবে এই ঘটনা ঘটল তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এই ধরণের ঘটনা আন্তর্জাতিক মহলে ভারতের বিরুদ্ধে ভুল বার্তা যাবে বলেই মনে করছেন আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মোবাইলে বা কম্পিউটারে The News বাংলা পড়তে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ।

আরও পড়ুনঃ পাকিস্তানের মাটিতে ঢুকে জঙ্গি ঘাঁটিতে হামলার অনুমতি চাইল দেশের সেনা
আরও পড়ুনঃ ভয়ঙ্কর সন্ত্রাসবাদী হামলা হবে জানিয়েছিলেন কাশ্মীর পুলিশের আধিকারিক
আরও পড়ুনঃ পাক জঙ্গিদের খুঁজে বের করে মারতে সেনাকে পূর্ণ স্বাধীনতা দিল মোদী সরকার
আরও পড়ুনঃ দেশ জুড়ে বদলার দাবি, কাউকে ছাড়া হবে না জানালেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

আপনার মোবাইলে বা কম্পিউটারে The News বাংলা পড়তে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন