পথ হারাল মমতার হেলিকপ্টার, হতে পারত বড় বিপদ

153
পথ হারাল মমতার হেলিকপ্টার, হতে পারত বড় বিপদ/The News বাংলা
পথ হারাল মমতার হেলিকপ্টার, হতে পারত বড় বিপদ/The News বাংলা

পথ হারিয়ে মমতার হেলিকপ্টার বাংলা থেকে সোজা ঢুকে পড়ল বিহারে। ঘটতে পারত বড়সড় বিপদ। চোপরায় মমতা নিজেই জানালেন এই ঘটনার কথা। আর এই ঘটনায় শোরগোল পরে গেছে গোটা রাজ্যে। ইতিমধ্যেই এই নিয়ে উচ্চ পর্যায়ের তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

রাজ্যে সবচেয়ে বেশি নিরাপত্তা পান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। জেড প্লাস প্লাস নিরাপত্তা পান মমতা। সেই মুখ্যমন্ত্রীর হেলিকপ্টার পথ হারাল কি করে? প্রশ্ন উঠেছে মমতার নিরাপত্তা নিয়ে।

আরও পড়ুনঃ মোদীকে আটকে দিল নির্বাচন কমিশন, ভোটের আগে জোর ঝটকা

আকাশে পথ হারিয়ে ফেলল মুখ্যমন্ত্রীর হেলিকপ্টার। তারই জেরে চোপড়ায় নির্বাচনী জনসভায় যোগ দিতে তাঁর এত দেরি। খোদ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ই জানালেন সে কথা। উত্তর দিনাজপুরের চোপড়ায় জনসভায় দেরি দেখে অনেকেই উদগ্রীব হয়ে পড়েছিলেন। তারপর মুখ্যমন্ত্রী নিজেই জানালেন তাঁর দেরি হওয়ার কারণ।

আরও পড়ুনঃ নির্বাচন কমিশনকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে মিমির বিজ্ঞাপনে মুখ ঢাকল যাদবপুর

বুধবার দুপুরে চোপড়ায় নির্বাচনী সভা ছিল মমতার। চোপড়া এলাকা দার্জিলিং লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত। এখানকার ভোটাররা দার্জিলিং লোকসভার জন্য ভোট দেন। এদিন সভার সময়ের প্রায় এক ঘণ্টা দেরিতে নামেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি নিজেই ভাষণে জানান, যে ২২ মিনিটের রাস্তা আসতে সময় লাগল প্রায় ৫৫ মিনিট।

আরও পড়ুনঃ রিগিং বন্ধ করে শান্তিপূর্ণ ভোট করাতে ৬টি বিশেষ অ্যাপস আনল নির্বাচন কমিশন

আসলে রাজ্যের মধ্যেই পথ হারিয়েছিল মমতার হেলিকপ্টার। বাংলা থেকে সোজা বিহারে ঢুকে যায় মুখ্যমন্ত্রীর হেলিকপ্টার। পরে ভুল বুঝতে পেরে ফের সভা মঞ্চের দিকে রওনা দেয় মমতার হেলিকপ্টার।

আরও পড়ুনঃ রাহুলের নির্বাচনী কেন্দ্র ওয়ানাড ভারতে নাকি পাকিস্তানে, সন্দেহ প্রকাশ অমিতের

মমতা নিজেই ভাষণে বলেন, তাঁর হেলিকপ্টার পথ হারিয়ে ফেলেছিল। জেড প্লাস প্লাস নিরাপত্তা পান মমতা। সেই মুখ্যমন্ত্রীর হেলিকপ্টার পথ হারিয়ে ফেলছে? প্রশ্ন উঠেছে মমতার নিরাপত্তা নিয়ে। নিরাপত্তার কতটা গাফিলতি হলে এই ধরণের ভুল হতে পারে। বড়সড় নিরাপত্তার গাফিলতি নিয়ে হইচই শুরু হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ ভোটের ঠিক আগে রাফাল মামলা নিয়ে চাঞ্চল্যকর নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট

মাত্র ২২ মিনিটের পথ শিলিগুড়ি থেকে চোপড়া। সেই পথ পেরোতেই মুখ্যমন্ত্রীর হেলিকপ্টারের সময় লেগে গেল ৫৫ মিনিট। ভুল পথে গিয়ে আকাশে ৩৩ মিনিট বেশি চক্কর কাটতে হল। কিন্তু কেন এমন ঘটল, তা নিয়েই প্রশ্ন উঠে পড়েছে। একজন মুখ্যমন্ত্রী, রাজ্যের শাসক দলের সুপ্রিমো, যিনি জেড ক্যাটগরি নিরাপত্তা পান, কেন তাঁর মতো ভিভিআইপি-র হেলিকপ্টার পথ হারিয়ে ফেলবে।

আরও পড়ুনঃ মহাজোটের ভরসা আলী হলে বাকিদের ভরসা বজরঙ বলী, মন্তব্য আদিত্যনাথের

ইতিমধ্যেই রাজ্যের স্বরাষ্ট্র দফতরের তরফ থেকে এই নিয়ে তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। প্রাথমিক তদন্তে উঠে এসেছে, হেলিকপ্টার চালকের গাফিলতির কথাই। কিভাবে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর হেলিকপ্টার পথ হারাল, উঠছে প্রশ্ন। চোপড়া সভাস্থলেও অনেকবার আকাশে চক্কর মারতে হয় মমতার হেলিকপ্টারকে। শেষ পর্যন্ত প্রায় এক ঘণ্টা দেরিতে সভা শুরু করেন মমতা।

আরও পড়ুনঃ প্রতিদিন মেক আপ ও ওয়াক্সিং করে সুন্দর চেহারা করেছেন মোদী, আক্রমণ কুমারস্বামীর

নিজের ভাষণে তিনি এই হেলিকপ্টার ও রাস্তা বিভ্রাটের কথা জানান মমতা নিজেই। এরপরেই নড়েচড়ে বসে রাজ্য প্রশাসন। সঙ্গে সঙ্গেই এই নিয়ে তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তদন্তে রিপোর্টে কি উঠে আসে সেটাই এখন দেখার।

এর আগেও মমতার হেলিকপ্টার নিয়ে কয়েকবারই নিরাপত্তার প্রশ্ন উঠেছে। এর আগেও বিহারের পাটনা থেকে কলকাতায় ফেরার সময় আকাশপথে চক্কর কাটতে হয়ছিল মুখ্যমন্ত্রীকে। তা নিয়ে কম জলঘোলা হয়নি। এবার বিষয়টি আরও গুরুতরও।

আরও পড়ুনঃ ভোট বুথে গুন্ডাগিরি ও রিগিং রুখতে নির্বাচন কমিশন আনল বিশেষ অ্যাপ

আপনার মোবাইলে বা কম্পিউটারে The News বাংলা পড়তে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন